4+saudi-princeআন্তর্জাতিক ডেস্ক: দাতব্য প্রতিষ্ঠানে তিনহাজার দুইশ কোটি ডলার দান করার ঘোষণা দিয়েছেন সৌদি আরবের ধনকুব প্রিন্স আলওয়ালিদ বিন তালাল। বুধবার সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে এক সংবাদ সম্মেলনে এ ঘোষণা দেন তিনি। ৬০ বছর বয়সী প্রিন্স তালাল বিশ্বের অন্যতম ধনী ব্যক্তি। ফোবর্স সাময়িকীর তালিকানুযায়ী তিনি বিশ্বের ৩৪তম শীর্ষ ধনী।

বিল ও মেলিন্ডা গেটসের উদ্যোগে ১৯৯৭ সালে প্রতিষ্ঠিত গেটস ফাউন্ডেশনের মাধ্যমে উদ্বুদ্ধ হয়ে তিনি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন তালাল। দান করা এসব অর্থ ‘সাংস্কৃতিক বোঝাপড়ার উন্নয়নে’, ‘নারীর ক্ষমতায়নে’ এবং ‘জরুরি দুর্যোগ ত্রাণ’সহ অন্যান্য কয়েকটি ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তালালের এই সিদ্ধান্তের প্রশংসা করেছেন বিল গেটস। তালালের এই পদক্ষেপে বিশ্বব্যাপী দাতব্য কাজ পরিচালনাকারী সবাই উদ্বুদ্ধ হবে বলে মন্তব্য করেছেন তিনি।

প্রিন্সের নিজস্ব দাতব্য প্রতিষ্ঠান আলওয়ালিদ দাতব্য সংস্থাকে এই সমুদয় অর্থ দেওয়া হবে। এর আগে প্রতিষ্ঠানটিতে আরো সাড়ে তিনশ কোটি ডলার দান করেছিলেন তিনি। তালাত সৌদি সরকারের কোনো দাপ্তরিক পদে নেই। তিনি বিনিয়োগ প্রতিষ্ঠান কিংডম হোল্ডিংস কোম্পানির চেয়ারম্যান। এই কোম্পানিটি হোটেল ব্যবসায় পুঁজি খাটানোর পাশাপাশি নিউজ কর্পোরেশন, সিটিগ্রুপ, ট্যুইটার এবং অ্যাপেলেও বিনিয়োগ করেছে।

দান করা সম্পদ নিজের ব্যক্তিগত বলে জানিয়েছেন তালাল, ঘোষণায় তিনি বলেছেন, “কিংডম হোল্ডিংসে আমার মালিকানা থেকে এটা অনেক আলাদা ব্যাপার।” “দাতব্য কাজ একটা ব্যক্তিগত দায়িত্ব। গত তিন দশকেরও বেশি সময় ধরে আমি এটি করে আসছি, আর এটি আমার ইসলামি বিশ্বাসের অবিচ্ছেদ্য অংশ।” আগামী কয়েক বছর ধরে দানের এই অর্থ প্রদান করা হবে এবং একটি ট্রাস্টি বোর্ডের মাধ্যমে তা তদারকি করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তিনি হবেন ওই ট্রাস্টি বোর্ডের প্রধান। যে মাসে অভাবীকে সহায়তা ও দান-খয়রাত করার জন্য মুসলমানদের উৎসাহিত করা হয়েছে, সেই রমযান মাসেই বিপুল এই সম্পদ দান করার ঘোষণা দিলেন প্রিন্স তালাল।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য