Nilphamariসৈয়দপুরে স্মরণকালের সাতাও (ঝড়) দেখা দেয়। ওই ঝড়ে উঠতি ফসলের ব্যাপক ক্ষতিসহ ছিন্নভিন্ন হয়ে যায় বৈদ্যুতিক তার । ফলে ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিহীন থাকে উপজেলা শহর। গতকাল শনিবার রাতে এ জড়ের তা-ব ঘটে। পরিদর্শনে দেখা যায় উঠতি ধানক্ষেত, আম, কাঁঠাল, লিচুর ব্যাপক ক্ষতি হয়। ভেঙে পড়ে বৈদ্যুতিক বেশ কয়েকটি খুঁটি। ফলে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় শহরে। পোল্ট্রি ফার্মে মরে যায় হাজার হাজার মুরগি, গাছপালা উপরে যাওয়াসহ ভেঙে যায় ডালপালা। ভুট্টা ক্ষেত ও লিচুর বাগান ভেঙে চুরমার হয়ে যায়। সব মিলিয়ে প্রায় কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে। স্মরণকালের এ সাতাও (ঝড়) সাথে মূষলধারে বৃষ্টি এ ক্ষতির কারণ হয়ে দাঁড়ায়। ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন থাকায় কলকারখানায় উৎপাদন বন্ধ থাকে। এ ব্যাপারে সৈয়দপুর বণিক সমিতির সভাপতি মো. ইদ্রিস আলী জানান, ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ না থাকায় কলকারখানার মালিকরা চরম বিপাকে পড়ে। এদিকে সৈয়দপুর বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ বলেন, ঝড়ে বৈদ্যুতিক খুঁটি ও তার ছিন্নভিন্ন হয়ে যাওয়ায় ১০ ঘণ্টা বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন থাকে। তিনি দাবি করেন তার লোকজন অক্লান্ত শ্রম দিয়ে দ্র”ত বিদ্যুৎ সচল করে তোলেন।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য