yegবিরল (দিনাজপুর) সংবাদাতা॥ বিরলে শিক্ষার্থীকে শারীরিক নির্যাতনের ঘটনায় প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে অভিভাবক। শারীরিক নির্যাতনের শিকার ওই শিক্ষার্থীর জখম এর চিহ্ন এক সপ্তাহেও মুছে যায়নি। জানা গেছে, উপজেলার পৌরশহরের বিরল আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের ১০ম শ্রেণীর ছাত্র জাহিদুল ইসলামকে গত ১৩ মে/২০১৫ বুধবার লাঠি দ্বারা বেদম প্রহার কওে প্রধান শিক্ষক মহি উদ্দীন। তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে প্রহারের পর জাহিদুল অসুস্থ্য হয়ে পড়লে তার বাড়ীতে সংবাদ দেয়া হয়। জাহিদুলের অবস্থা বেগতিক দেখে পরিবারের লোকজন অসুস্থ্য জাহিদুলকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। উল্লেখ্য যে, ইতিপূর্বেও আরও কয়েকজন শিক্ষার্থীকে প্রধান শিক্ষক মহি উদ্দীন শারীরিক নির্যাতন করায় ক্ষমা চেয়ে এবং অঙ্গিাকানামা প্রদান করে পার পেয়ে যান। শারীরিক নির্যাতনের বিষয়ে অভিভাবকদের বাঁধা এমনকি প্রশাসনিক বিধি ও নিয়মকে তোয়াক্কা না করে এবার তিনি আরো এক শিক্ষার্থীকে অমানবিকভাবে শারীরিক নির্যাতন করায় ভূক্তভোগী শিক্ষার্থীর অভিভাবক উপজেলা নির্বঅহী অফিসার বরাবওে লিখিত অভিযোগ দায়ের কওে অনুলিপি জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে প্রেরণ করেছেন। ঘটনায় সাধারণ শিক্ষার্থীসহ অভিভাবকবৃন্দ প্রধান শিক্ষক মহি উদ্দীনের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানিয়েছে। এ ব্যাপারে প্রধান শিক্ষক মহি উদ্দীন এর সাথে যোগাযোগ করা হলে বৃহষ্পতিবার তাঁকে বিদ্যালয়ে পাওয়া যায়নি।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য