Birgonjবীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ বীরগঞ্জে শুক্রবার বিকেলে জোর করে বিয়ে দেয়ার চেষ্টা করার কারনে গলায় ফাঁস দিয়ে এক বালিকার আত্মহত্যা করেছে। উপজেলার গোলাপগঞ্জ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫মশ্রেণীর ছাত্রী মরিচা ইউনিয়নের বাসুদেবপুর গ্রামের সুভাষ চন্দ্র রায়ের কিশোরী কন্যা পৌরবী রানী রায় (১৪) শুক্রবার বিকেলে সকলের দৃষ্টির আঢ়ালে গলায় ফাসঁ দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। প্রতক্ষদর্শি ও গ্রামবাসী জানান কিছুদিন আগে মেধাবী ছাত্রী পৌরবীর মারা যায় ৫ম শ্রেণী পাশ করার পর তাকে স্কুলে ভর্তি করেনি। তদুপরি তাকে বিয়ে দেওয়ার জোর তৎপরতা চালানো হচ্ছে। কয়েক দিন আগে পাত্রপক্ষ এসে পৌরবীকে দেখে গেছে। বিয়ে প্রায় ঠিকঠাকের সংবাদে তার মন খারাপ বলে পৌরবীর খেলার সাথীরা জানায়। এব্যাপারে বীরগঞ্জ থানায় একটি অস্বাভবিক মৃত্য মামলা দায়ের করা হয়েছে। ওসি মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেন অপমৃত্য ঘটনা নিশ্চিত করেছেন।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য