554ভূরুঙ্গামারী (কুড়িগ্রাম ) প্রতিনিধিঃ মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর , মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রনালয়ের উদ্যোগে পরিচালিত দেশব্যাপী ‘ জয়িতা অন্বেষনে বাংলাদেশ’ শীর্ষক কার্যক্রমে ‘ বিভীষিকা মুছে ফেলে নতুন উদ্যোমে জীবন শুরু করেছে যে নারী ’ ক্যাটাকরীতে কুড়িগ্রামের সর্বশ্রেষ্ঠ জয়িতার (২০১৪) সম্মানে ভূষিত হলেন ভূরুঙ্গামারীর মোছাঃ কমলা খাতুন । এর আগে তাকে একই ক্যাটাগরীতে ভূরুঙ্গামারী  উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কর্তৃক সর্বশ্রেষ্ঠ জয়িতা এবং সর্বশেষ ১১.০৪.১৫ ইং রংপুর আরডিআরএস মিলনায়তনে বিভাগীয় কমিশনার মুহাঃ দিলওয়ার বখত কর্তৃক জয়িতা (২০১৪) স্বীকৃতি প্রদান করা হয় । বাল্য বিবাহিত জীবনে দুই সন্তানের জননী  হওয়ার পর স্বামী কর্তৃক পরিত্যক্ত হলে এক সময় সমাজে অবহেলিত আর খুবই অসহায় হয়ে পড়েন কমলা খাতুন । সেখান থেকে জীবন সংগ্রামের বিভিন্ন ঘাত-প্রতিঘাতের মধ্য দিয়ে ২ সন্তান নিয়ে সম্মানের সহিত এগিয়ে চলা পল্লীর এই গুণবতী  নারীর বাড়ী  উপজেলার জয়মনিরহাট ইউনিয়নের বড় খাটামারী  ( বাউশমারী ) গ্রামে । তিনি বেসরকারী উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাকের সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচীর অন্তর্ভূক্ত বাউশমারী পল্লী সমাজের একজন সক্রিয় সদস্য ।
[ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য