01. Red-Crossআন্তর্জাতিক ডেস্ক: আন্তর্জাতিক রেডক্রস কমিটি (আইসিআরসি) ইয়েমেনের রাজধানীতে দুটি জরুরি ত্রাণবাহী বিমান পাঠাবে। বার্তা সংস্থা এএফপি’র খবরে বলা হয়েছে, ইয়েমেনে জরুরি সেবা কর্মী ও চিকিৎসা সামগ্রীবাহী বিমান অবতরণের অনুমতি পেয়েছে আইসিআরসি। এদিকে, দেশটিতে ১২তম রাতের মতো গতরাতেও হুতি বিদ্রোহীদের লক্ষ্য করে বিমান হামলা চালিয়েছে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট। দক্ষিণাঞ্চলের বন্দর নগরী এডেনে যুদ্ধ আরো জোরদার হয়েছে এবং সরকারি সৈন্যরা হুতিদের বিরুদ্ধে যুদ্ধে লিপ্ত রয়েছে। জাতিসংঘ বলেছে, ইয়েমেনে গত দুই সপ্তাহে ৫ শতাধিক লোক নিহত হয়েছে। আইসিআরসি জানায়, তারা গুরুত্বপূর্ণ চিকিৎসা সামগ্রীবাহী একটি মালবাহী বিমান ও ত্রাণ কর্মীবাহী একটি ছোট যাত্রীবাহী বিমান সানায় পাঠাবে। তবে সংস্থাটি এডেনে নৌযানে করে অস্ত্রোপচারকারী একটি দল পাঠানোর অনুমতির অপেক্ষায় রয়েছে। সংস্থার মুখপাত্র মারিয়া ক্লেইরি ফেগহালি সতর্কবাণী করেছেন, নগরীতে মানবিক পরিস্থিতি ‘খুবই করুণ’। তিনি বলেন, ‘লোকজন খাবার কিনতে বাইরে যেতে পারছে না। আমরা জানি, নগরীতে পানির সংকট রয়েছে। কারণ পানির পাইপ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আমরা আমাদের সাধ্যমত করার চেষ্টা করছি। তবে পরিস্থিতি খুবই কঠিন।’ আইসিআরসি এডেন নগরীতে ২৪ ঘন্টার অস্ত্রবিরতির আহ্বান জানিয়েছে। অন্যদিকে রাশিয়া বিমান হামলার মধ্যে ‘সাময়িক বিরতি’ দেয়ার প্রতি সমর্থন দিতে জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে। এদিকে সৌদি জোটের বিমান হামলায় যোগ দেওয়া না দেওয়া নিয়ে একটি বিশেষ অধিবেশনে বসছে পাকিস্তানের পার্লামেন্ট। রোববার পাকিস্তানি বিমানে সানা থেকে ১৭০ জনকে উদ্ধার করা হয়। ইতোমধ্যে ৮ শতাধিক পাকিস্তানি ইয়েমেন ছেড়েছে। এডেন নগরীর বিভিন্ন রাস্তায় প্রেসিডেন্ট আবদ্রাবো মনসুর হাদির অনুগত সেনাদের সঙ্গে হুতি বিদ্রোহীদের ব্যাপক যুদ্ধ হচ্ছে। গত কয়েক মাস ধরে ইয়েমেনে রাজনীতিক অচলাবস্থা চলছে। গত সেপ্টেম্বরে বিদ্রোহী শিয়া মুসলিম গোষ্ঠি হুতি’র যোদ্ধারা রাজধানী দখল করে নেয়। এক মাস আগে তারা প্রেসিডেন্টের প্রাসাদ দখল করে প্রেসিডেন্ট আবদ্রাবো মনসুর হাদি ও তার সরকারকে পদত্যাগে বাধ্য করে। এরপর হাদি গৃহবন্দীত্ব থেকে দক্ষিণাঞ্চলের এডেন নগরীতে পালিয়ে যেতে বাধ্য হয়। গত মাসে হুতি ও বিদ্রোহী সেনা ইউনিটের সদস্যরা এডেন নগরীর দিকে অগ্রসর হলে হাদি সৌদি আরব চলে যান। [ads1]
[ads2]

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য