রংপুরে সন্ত্রাস ও অরাজকতা, বোমা হামলা, নাশকতা সৃষ্ঠিকারীদে হাত থেকে রংপুর নরগীকে রক্ষায় আড়াই হাতি লাঠি বানানোর নির্দেশ দিয়েছেন রংপুর সিটি মেয়র সরফুন্দিন আহমেদ ঝন্টু। মঙ্গলবার দুপুরে রংপুর সিটি কর্পোরেশনের সামনে থেকে শান্তি মিছিল বের হয়ে নগরির প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে জেলা প্রশাসকের কার্যালয় হয়ে স্থানীয় প্রেস ক্লাব চত্বরে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালিতে জনপ্রতিনিধি, বিভিন্ন সংগঠন, ছাত্র-শিক্ষক, সাংস্কৃতিক, রাজনীতিক ব্যক্তিবর্গসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ অংশ নেয়। মিছিল শেষে রংপুর প্রেস ক্লাব চত্তরের সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন। তিনি বলেন, রংপুর প্রতিটি ওয়ার্ডে শান্তি রক্ষায় শান্তি কমিটি গঠন করতে হবে। যাঁরা নগরীতে অরাজকতা সৃষ্টি করে তাদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। মেয়র বলেন, এখন থেকে যাঁরা সন্ত্রাসী কর্মকা- করবে তাদের আর ছাড় দেওয়া হবে না। আজ থেকে সন্ত্রাসীদে বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করা হলো। আমরা যুদ্ধে নেমেছি আর এই যুদ্ধ থেকে পিছপা হওয়া যাবেনা। তিনি বলেন, প্রতিটি ওয়ার্ডে কমিটি গঠনের পাশাপাশি আড়াই হাতি লাঠি তৈরি করেন। ওই লাঠি দিয়ে নগরীতে অরাজকতা সৃষ্টিকারীদের ধরে ধরে হাত-পা ভেঙে দিন। এতে যদি প্রশাসন আপনাদের বিরুদ্ধে কোনো মামলা করে তা হলে সেই মামলার ১নং আসামি হবো আমি নিজেই। কারণ শান্তির জন্য যা যা করা দরকার তাই করতে আমরা প্রস্তুত। শান্তির মধ্যে কাউকে অশান্তি সৃষ্টি করতে দেওয়া হবে না। মেয়র সরফুন্দি আহম্মেদ ঝন্টু আরও বলেন, যাঁরা বাসে পেট্রোল বোমা মেরে মানুষ মারে তারা দেশের শত্রু। এদেরকে কোনো ক্রমেই ছাড় দেওয়া হবেনা। তিনি সবাইকে শান্তির পতাকাতলে আসার আহবান জানান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন রংপুর জেলা প্রশাসক ফরিদ আহমেদ, পুলিশ সুপার আবদুর রাজ্জাকসহ বিভিন্ন ওয়ার্ডের কাউন্সিলনবৃন্দ। প্রশাসনের পক্ষে রংপুর জেলা প্রশাসক ফরিদ আহম্মেদ ও পুলিশ সুপার আবদুর রাজ্জাক শান্তির পক্ষে জনগনের পাশে থাকার অঙ্গীকার করেন।



 
 
 



 

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য