আন্তর্জাতিক ডেস্ক: সিরিয়ার সীমান্তবর্তী গোলান মালভূমিতে ইসরায়েলি হেলিকপ্টার থেকে ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় লেবাননের হিজবুল্লাহ গেরিলা কমান্ডারসহ ৬ জন নিহত হয়েছে। নিহতদের মধ্যে হিজবুল্লাহর এক প্রয়াত সামরিক নেতার ছেলে এবং ইরানের রেভল্যুশনারি গার্ডের এক সদস্যও রয়েছেন। হিজবুল্লাহর আল-মানার টিভি জানিয়েছে, কুনেইত্রা প্রদেশে মাঠপর্যায়ের একটি অভিযানের সময় তারা নিহত হয়। ইসরায়েল এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করেনি। তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সূত্র ইসরায়েলের হেলিকপ্টার থেকে তাদের ওপর হামলা চালানোর খবর নিশ্চিত করেছে।

‘সিরিয়ায় ফের বিমান হামলা চালালে ইসরায়েলকে উপযুক্ত জবাব দেওয়া হবে’ বলে হিজবুল্লাহ নেতা হাসান নাসরুল্লাহর এক ঘোষণার কয়েকদিন পর রোববার এ হামলা হল। নাসরুল্লাহ জানিয়েছিলেন, ইসরায়েলকে মোকাবেলার মতো তার বাহিনী যথেষ্ট অস্ত্র মজুদ করছে। এসব অস্ত্রের মধ্যে দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্রও আছে যা ইসরায়েলের সবখানে আঘাত হানতে সক্ষম।

সিরিয়ায় গত চার বছর ধরে চলা গৃহযুদ্ধে প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের পক্ষে লড়ছে হিজবুল্লাহ। যুদ্ধে এ পর্যন্ত ২ লাখের বেশি মানুষ নিহত হয়েছে। সঙ্ঘাত শুরুর পর দেশটিতে এর আগেও বেশ কয়েক বার বিমান হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল।
রকেটের মজুদ সিরিয়া সরকারের কাছ থেকে ইরান এবং হিজবুল্লাহর হাতে চলে যাওয়া ঠেকানোই এসব হামলার উদ্দেশ্য বলে জানিয়েছে ইসরায়েল।



 
 
 



 

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য