বিএনপি‘র প্রার্থীর জয়লাভরতন সিং, দিনাজপুর॥ ৪র্থ উপজেলা নির্বাচনে বুধবার দিনাজপুরের কাহারোল ও খানসামা উপজেলার ৬টি পদেই বিএনপি-জামায়াতের প্রার্থীরা বিজয়ী হয়েছেন। কাহারোলে বিএনপি’র মামুনুর রশিদ চৌধুরী ও খানসামায় বিএনপি’র মোঃ সহিদুজ্জামান শাহ নির্বাচিত হয়েছেন।

জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রিটার্নিং অফিসার নুরুজ্জামান তালুকদার জানান, বুধবারের প্রথমধাপের উপজেলা নির্বাচনে দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলায় ৩০ হাজার ৩৬৮ ভোটে বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান বিএনপি’র মামুনুর রশিদ চৌধুরী চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী গোপেশ চন্দ্র রায় পেয়েছেন ২৪ হাজার ৪৭১ ভোট। অপর ২ প্রতিদ্বন্দ্বি বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগের সমর্থিত আব্দুল মালেক সরকার ১৫ হাজার ৪১৫ ও শরিফউদ্দীন আহমেদ ৪ হাজার ১৩৪ ভোট পেয়েছেন। ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৫০১ ভোটের ব্যবধানে নির্বাচিত হয়েছেন জামায়াতের মোঃ আব্দুল গনি। তিনি পেয়েছেন ১৯ হাজার ৭৪১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হৃদয় চন্দ্র রায় পান ১৯ হাজার ২৪০ ভোট। আওয়ামী লীগের সমর্থিত প্রার্থী হাফিজুল ইসলাম চৌধুরী ১৬ হাজার ৫৮৬, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ওসমান গনি ৪ হাজার ৯২৮ এবং জাতীয় পার্টির জয়নাল আবেদিন সরকার পেয়েছেন ১১ হাজার ৪৫৮ ভোট। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানে ২৭ হাজার ৩৯৯ ভোটে নির্বাচিত হয়েছেন জামায়াতের জুলেখা বেগম। আওয়ামী লীগের ৪ প্রার্থী মীরা মাহবুব ১৬ হাজার ৮৬৪, বীনা রানী শীল ১৬ হাজার ৫৫৪, মৌসুমী আখতার ৮ হাজার ১৮৭ এবং সুধা রানী রায় ৪ হাজার ২৪৫ ভোট পান। কাহারোল উপজেলায় ১ লাখ ২ হাজার ১৯৩ ভোটের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৭৭ হাজার ১৩০ জন।

খানসামা উপজেলায় ১৩ হাজার ৬৬৭ ভোটের ব্যবধানে আবারো নির্বাচিত হলেন বিএনপি’র প্রার্থী মোঃ সহিদুজ্জামান শাহ। তিনি পান ৪০ হাজার ৩৮৮ ভোট। আওয়ামী লীগ মনোনীত ওয়ার্কার্স পার্টির নেতা মাহফুজুর রহমান চৌধুরী ২৬ হাজার ৭২১, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মোঃ আবু হাতেম ১০ হাজার ৪৮৩, বিএনপি’র বিদ্রোহী প্রার্থী মোবাশ্বের হক সরকার ৩৫৪ এবং জাসদের মোহাম্মদ আলী শাহ ৬৮৯ ভোট পান। ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৩৫ হাজার ৫৯৮ ভোট পেয়ে আবারো নির্বাচিত হয়েছেন বিএনপি’র এটিএম সুজাউদ্দীন শাহ। আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ১৯ হাজার ৯৭, আওয়ামী লীগ মনোনিত প্রার্থী আব্দুল্লাহ আল মামুন ৭ হাজার ৭২৯, বিএনপি’র বিদ্রোহী প্রার্থী মশিউর রহমান চৌধুরী ৭ হাজার ৭৭৮ এবং জামায়াতের মোঃ আতিকুর রহমান ৬ হাজার ৭২১ ভোট পান। মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে জামায়াতের মীনা বেগম ২৮ হাজার ৩২২ ভোটের ব্যবধানে নির্বাচিত হন। তিনি পেয়েছেন ৪৮ হাজার ২৫৪ ভোট। আওয়ামী লীগের মনোনীত নুরাইনা বেগম ১৯ হাজার ৯৩২ ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মহসিনা বেগম ৬ হাজার ৯০৬ ভোট পান। ১লাখ ১১ হাজার ৩৭৭ জনের মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৮২ হাজার ২০৩ জন ভোটার।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য