নগ্ন নৃত্য ও জুয়ার আসররতন সিং, দিনাজপুর ॥ দিনাজপুরের ঢেমঢেমিয়া কালীর মেলায় অবাধে জুয়া ও নগ্ননৃত্য চলছে। অবৈধ কর্মকান্ড বন্ধের লিখিত দাবী জানিয়েছেন বীরগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান।

দিনাজপুরের বীরগঞ্জ উপজেলার ঢেমঢেমিয়া কালীর মেলায় ১১ দিন ধরে চলছে ৩৩টি ভ্যারাইটি শোতে নগ্ন নৃত্য, অশ্লীল কর্মকান্ড এবং ৫০টিরও বেশি জায়গায় অবাধ জুয়া। মেলার টোল আদায়কারী পাল্টাপুরের তোফাজ্জল হোসেন সাইকেল স্ট্যান্ড, ফার্নিচার ও সার্কাসের টোল আদায়ের অনুমতি পেলেও কোন ধরনের অনুমতি ছাড়াই তোফাজ্জল কালি মেলায় ৩৩টি ভ্যারাইটি শো ও ৫০টি অধিক জায়গায় অবাধে জুয়ার আসর বসানোর ব্যবস্থা করেছে।

ভ্যারাইটি শোর নামে নগ্ন নৃত্য ও অশ্লীল কর্মকান্ড প্রকাশ্যে চলায় বিভিন্ন স্থান থেকে তরুণ ও যুবকরা দলে দলে মেলায় আসছে। জানা গেছে, ভ্যারাইটি শো শেষ হওয়ার পর রাত ১১টা থেকে প্যান্ডেল পরিণত হয় পতিতালয়ে। ভ্যারাইটি শোর নৃত্য শিল্পীরা পতিতাবৃত্তিতে নেমে যায়। এর সাথে টোল আদায়কারী তোফাজ্জল ও ভ্যারাইটি শো গুলোর ম্যানেজারগণ জড়িত বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা শুরুর প্রাক্কালে কালী মেলায় নগ্ননৃত্য, অশ্লীল কর্মকান্ড ও জুয়া চলায় অভিভাবকরা চরম দুশ্চিন্তার শিকার হয়েছেন।

বীরগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আমিনুল ইসলাম রোববার জেলা প্রশাসক আহমদ শামীম আল রাজীর কাছে লিখিতভাবে অভিযোগ করে অবিলম্বে কালী মেলায় অনৈতিক কর্মকান্ড বন্ধসহ দায়ী ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার দাবী জানিয়েছেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য