কুড়িগ্রামের রাজিবপুরে কয়েক দফার বন্যায় শুধু কৃষি খাতে ক্ষতি হয়েছে প্রায় ৩৫ কোটি টাকার। বিগত ৩০ বছরেও এত বড় ক্ষতি হয়নি এ উপজেলায়। রাজিবপুর উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে এই তথ্যটি। কৃষি অফিস জানান, চলতি বছরে এ উপজেলায় ৩ হাজার ২শত ৩০ হেক্টর জমিতে আমন চাষ করা হয়েছিল।এর মধ্যে মাত্র টিকে আছে মাত্র ১হাজার ৬২৫ হেক্টর। ক্ষতি হয়েছে ৮ হাজার ৭২০ মে’টন। যার মূল্য ১৭ কোটি ৫০ লক্ষ। শাকসবজির ক্ষতি হয়েছে ৩২০ হেক্টর যার পরিমাণ ২ হাজার ৫২১ মে’টন। যার মূল্য ধরা হয়েছে কোটি ৩০ লক্ষ টাকা। মরিচের ক্ষতি হয়েছে ৯৬ হেক্টর যার মূল্য ৩ কোটি টাকা,মাসকলাই ৩২৫ হেক্টর যার মূল্য ৪ কোটি ১৯ লক্ষ টাকা, আদা-হলুদ ক্ষতি হয়েছে ২৫ হেক্টর যার মূল্য ১ কোটি ৬৪ লাখ।অপর দিকে ১১০ হেক্টর বীজতলা মধ্যে ক্ষতি হয়েছে ৬০ হেক্টর যার উৎপাদন ক্ষতি ২ কোটি ৩৬ লক্ষ। সর্বমোচ ক্ষতি হয়েছে৩৪ কোটি ৯৩ লক্ষ।এ ব্যাপারে রাজিবপুর কৃষি অফিসের উপসহকারী উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ মণ্ডল জানান আমরা উপজেলার কৃষি খাতের সকল তথ্য সংগ্রহ করে সরকারকে অবহিত করিয়েছি। পর্যায়ক্রমে সকলকে সরকারি সুবিধা প্রদান করা হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য