ফুলবাড়ী ট্রাজেডি দিবস পালিতমোঃ মাহমুদুল হক মানিক, বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি: আগামী তিন মাসের মধ্যে ফুলবাড়ীবাসীর সঙ্গে সম্পাদিত চুক্তি বাস্তবায়ন করা না হলে, এ অঞ্চলের ছয় উপজেলার মানুষ সমাবেশ করে বৃহত্তর আন্দোলন কর্মসূচি ঘোষণা করবে বলে জানিয়েছেন অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ। ফুলবাড়ী দিবস পালন উপলক্ষে মঙ্গলবার দিনাজপুরের ফুলবাড়ী পৌর শহরের সকল দোকন পাট অর্ধবেলা বন্ধ ছিল।

দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে ফুলবাড়ী ট্র্যাজেডি দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক সমাবেশে তেল, গ্যাস, বিদ্যুৎ, বন্দর ও খনিজ সম্পদ রক্ষা জাতীয় কমিটির সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ সরকারকে ফুলবাড়ী চুক্তি বাস্তবায়নের আহ্বান জানিয়ে এ সব কথা বলেন।

অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা উন্মুক্ত পদ্ধতিতে কয়লা উত্তোলনের বিপক্ষে কথা বললেও সরকার উন্মুক্ত পদ্ধতিতে কয়লা উত্তোলনের পক্ষে কথা বলছে।

তিনি আরও বলেন, ফুলবাড়ী সংলগ্ন পার্বতীপুর উপজেলার বড়পুকুরিয়াতেও উন্মুক্ত পদ্ধতিতে কয়লা উত্তোলনের পাঁয়তারা চলছে। ২০০৬ সালে ফুলবাড়ীতে যেভাবে গণআন্দোলন গড়ে তোলা হয়েছিল এখনও সেভাবে গণ আন্দোলন গড়ে তোলার আহ্বান জানান তিনি।

ফুলবাড়ী সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন, তেল, গ্যাস, বিদ্যুৎ, বন্দর ও খনিজ সম্পদ রক্ষা জাতীয় কমিটির ফুলবাড়ী শাখার আহ্বায়ক সৈয়দ সাইফুল ইসলাম জুয়েল। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- তেল, গ্যাস, বিদ্যুৎ, বন্দর ও খনিজ সম্পদ রক্ষা জাতীয় কমিটির আহ্বায়ক প্রকৌশলী শেখ মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ, বাংলাদেশ ওয়ার্কাস পার্টির সাধারণ সম্পাদক ফজলে হোসেন বাদশা এমপি, ওয়ার্কাস পার্টির নেতা অধ্যাপক ইয়াসিন আলী এমপি, গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জুনায়েদ সাকী, সিপিবির ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক শাহ আলম, জাতীয় গণফ্রন্টের সমন্বয়ক টিপু বিশ্বাস, সদস্য ইয়াছিন আলী এমপি, তেল গ্যাস কমিটির কেন্দ্রীয় সদস্য শুাভ্রাংসু চক্রবর্তী, নজরুল ইসলাম, এজেএ খালেক, প্রকৌশলী কলে¬াল মোস্তফা, তানজিম উদ্দিন খান, আলতাফ হোসাইন, রবিউল আউয়াল খোকা, আনোয়ার আলী সরকার, মোসাদ্দেক হোসেন লাবু, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম বাবলু, এম.এ কাইয়ুম, সঞ্জিত প্রসাদ জিতু প্রমূখ ।

অপরদিকে, ফুলবাড়ী পৌর মেয়র মুর্তুজা সরকর মানিকের নেতৃত্বে বিভিন্ন অরাজনৈতিক, পেশাজীবী সংগঠন পৃথকভাবে শোকর‌্যালী এবং শহীদস্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পন শেষে সমাবেশ করে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য