বালিয়াডাঙ্গী(ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধিঃ বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার ঐতিহ্যবাহী লাহিড়ী হাটে উপজেলা ভুমি অফিসটি পাকিস্তান আমল হতে প্রধান অফিস হিসেবে কার্যক্রম হয়ে আসছে। বর্তমানে অফিসটিতে দীর্ঘ দিন ধরে সহকারী ভূমি কমিশনার না থাকার কারণে সকল প্রকার কার্যক্রম ব্যাহত হচ্ছে। একটি সুত্রে জানা যায়, একজন বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সগীর হোসেন এর দ্বারা দুইটি দায়িত্ব পালন করার ফলে সঠিক সময়ে কার্যক্রম করতে পারছেন না। এতে করে একটি কাজের জন্য ভূমি অফিসে বেশ কয়েক বার ঘূরা ঘুরি করতে হচ্ছে। ফলে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার ৮টি ইউনিয়নের মানুষ হয়রানীর স্বীকার হচ্ছে। সঠিক সময়ে জমির খারিজ/খাজনা পাচ্ছে না। এছাড়া অফিসের কর্মকর্তা না থাকার কারণে অফিস নিজ ইচ্ছায় চলছে। ভূমি কমিশনার না থাকায় সময়ের আগেই অফিসের লোকজন অফিস বন্ধ করে চলে যাচ্ছে। মানুষ জনের জমির খারিজ/খাজনার জন্য এলে তাদের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করছে। এই ব্যাপারে ৮টি ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার মানুষের অভিযোগ রয়েছে। বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা ভুক্ত ভোগী আমিনুর রহমান বলেন যে, ৬ মাস ঘুরেও আমার জমির খারিজ পাচ্ছিা না। বালিয়াডাঙ্গী উপজেলা এলাকা বাসী অভিলম্বে বর্তমান সরকারের কাছে আকুল আবেদন করেছে একজন সহকারী ভূমি কমিশনার নিয়োগ দিয়ে সমস্যার সমাধান করতে উর্দ্দতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য