saidpur pic,10-08-2014সৈয়দপুর প্রতিনিধি: সৈয়দপুরে রেলওয়ে কারখানার অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিক-কর্মচারীদের মাঝে পরিচয়পত্র বিতরণ শুরু হয়েছে। রেলওয়েম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদ সৈয়দপুর শাখার উদ্যোগে ওই পরিচয়পত্র বিতরণ করা হচ্ছে। গতকাল (রোববার) বেলা ১১টায় রেলওয়ে বিভাগীয় বেতন ব্যবস্থাপক (ডিপিএম) কার্যালয় চত্বরে আনুষ্ঠানিকভাবে ওই পরিচয়পত্র বিতরণের উদ্বোধন করা হয়।

পরিচয়পত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এর শুভ উদ্বোধন করেন সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার বিভাগীয় তত্ত্বাবধায়ক (ডিএস) মো. নুর আহাম্মদ হোসেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রেলওয়েম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদ সৈয়দপুর শাখার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মো. আব্দুল বাকী মন্ডল। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন, রেলওয়েম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদ সৈয়দপুর সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বাঙ্গালী।

এতে বক্তব্য রাখেন রেলওয়ে শ্রমিক লীগ সৈয়দপুর কারখানা শাখার সাধারণ সম্পাদক শ্রমিকনেতা মো. মোখছেদুল মোমিন প্রমূখ। অনুষ্ঠানে রেলওয়ে বিভাগীয় বেতন ব্যবস্থাপক (ডিপিএম) মো. নজিবর রহমান, রেলওয়েম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদ সৈয়দপুর শাখার কার্যকরী সভাপতি মো. আবদুর রাজ্জাক,সংগঠনের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। পরে প্রধান অতিথি সৈয়দপুর রেলওয়ে কারখানার বিভাগীয় তত্ত্বাবধায়ক (ডিএস) মো. নুর আহাম্মদ হোসেন অবসরপ্রাপ্ত কয়েকজন শ্রমিক-কর্মচারীর হাতে পরিচয়পত্র তুলে দিয়ে কর্মসূচির উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে প্রায় দুই শতাধিক অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিক-কর্মচারী ও তাদের পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও বিভাগীয় তত্ত্বাবধায়ক (ডিএস) মো. নুর আহাম্মদ হোসেন রেলওয়েম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদের তহবিলে নগদ ২হাজার হাজার টাকা প্রদান করেন। উল্লেখ্য,এবারই সর্বপ্রথম সৈয়দপুর রেলওয়ে ম্যান্স অবসরপ্রাপ্ত কল্যাণ পরিষদ সৈয়দপুর শাখার উদ্যোগে রেলওয়ের অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিক-কর্মচারীদের মাঝে পরিচয়পত্র বিতরণের উদ্যোগ গ্রহন করা হয়। আর অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিক-কর্মচারীদের ওই সংগঠনটির বর্তমান সদস্য সংখ্যা ৩ হাজার ৩০০ জন।  তাদের মধ্যে পরিচয়পত্র বিতরণের প্রথম দিনে গতকাল আনুষ্ঠানিকভাবে শতাধিক অবসরপ্রাপ্ত শ্রমিক-কর্মচারীর মধ্যে পরিচয়পত্র বিতরণ করা হয়েছে।  আগামীতে পর্যায়ক্রমে সংগঠনের সকল সদস্যের মাঝে পরিচয়পত্র প্রদান করা হবে বলে সংগঠনটির সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য