নীলফামারীতে ২ হাসপাতাল-ডায়াগনস্টিক সেন্টার সিলগালা

নীলফামারীতে ২ হাসপাতাল-ডায়াগনস্টিক সেন্টার সিলগালা

রংপুর

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা অনুযায়ী নীলফামারীতে দুটি বেসরকারি হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে স্বাস্থ্য বিভাগ। এরমধ্যে শহরের ডালপট্টি এলাকায় অবস্থিত ইবাদত হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের কার্যক্রম সাত দিনের জন্য স্থগিত এবং সদর উপজেলার গোড়গ্রাম ইউনিয়নের হাজীগঞ্জে অবস্থিত মাহবুবা মেমোরিয়াল জেনারেল হাসপাতাল সিলগালা করে দেওয়া হয়।

গতকাল সন্ধ্যা পর্যন্ত এ অভিযান চালনো হয়। ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. আবু হেনা মোস্তফা কামালের নেতৃত্বে অভিযানে উপস্থিত ছিলেন সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিকেল অফিসার ডা. আব্দুল্লাহ আল মামুন ও নীলফামারী জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।

ভারপ্রাপ্ত সিভিল সার্জন ডা. আবু হেনা মোস্তফা কামাল বলেন, ইবাদত হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারের অনলাইনের আবেদনের সঙ্গে বাস্তবের মিল পাওয়া যায়নি। আবেদন যাচাইকালে আবাসিক মেডিকেল অফিসার পদে ডা. সুমাইয়া আজাদ তৃষাকে নিয়োগ দেওয়া হলেও নিয়োগপত্রে পরিচালকের স্বাক্ষর পাইনি। অপরদিকে মাহবুবা মেমোরিয়াল জেনারেল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ কোনো ধরনের কাগজপত্র দেখাতে পারেনি।

অভিযানে ইবাদত হাসপাতালের কার্যক্রম সাত দিনের স্থগিত ঘোষণা এবং মাহবুবা মেমোরিয়াল হাসপাতাল তাৎক্ষণিক সিলগালা করা হয়।

প্রসঙ্গত, উচ্চ আদালদের নির্দেশনার পর স্বাস্থ্য অধিদফতর সারাদেশে অবৈধ এবং অনুমোদনহীন হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার বন্ধের পদক্ষেপ শুরু হয়। যার অংশ হিসেবে নীলফামারীতে অভিযান পরিচালনা করে স্বাস্থ্য বিভাগ।