ফুলবাড়ীতে গ্রীল কেটে কৃষকের গরু চুরি

ফুলবাড়ীতে গ্রীল কেটে কৃষকের গরু চুরি

দিনাজপুর

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে গ্রীল কেটে একই বাড়ী থেকে ৫টি গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে হয়েছে।

শুক্রবার দিবাগত রাতে উপজেলার এলুয়াড়ী ইউনিয়নের নব গ্রামের কৃষক আমজাদ হেসেনের ছেলে প্রভাষক নাজমুল হকের গরুর ঘরের গ্রীল কেটে ৩টি গাভি ও ২ুটি এড়েঁ গরু চুরি করে নিয়ে যায়।

এই ঘটনায় শনিবার সকাল ১১ টায় ফুলবাড়ী থানা পুলিশ, এলুয়াড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মওঃ নবীউল ইসলাম ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মঞ্জু রায় চৌধুরী ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

এদিকে গ্রামবাসীরা জানায় গত দুই বছরে একই গ্রাম থেকে ২৪টি গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে।

কৃষক নাজমুল হকের বড়ভাই মহসিন রেজা বলেন, শুক্রবার দিবাগত রাত একটা থেকে ৩টার মধ্যে বৃষ্টি পাতের সময় চোরেরা গরুর ঘরের গ্রীল ও তালা কেটে ৩টি গাভি ও ২টি এড়েঁ গরু চুরি করে নিয়ে যায়, যার বাজার মূল্য প্রায় সাড়ে তিন লাখ টাকা। তিনি আরো বলেন ২০২০ সালে তাদের ১০টি গরু একই ভাবে চুরি করে নিয়ে যায়।

এদিকে গ্রামবাসীরা বলেন ওই গ্রাম থেকে গত দুই বছরের মধ্যে একই গ্রামের জাহিদুল ইসলামের ২টি, আতাউর রহমানের ২টি ও আবুল কালামের ৫টিসহ ২৪টি গরু চুরি হয়ে যায়, কিন্তু একটি গরুও উদ্ধার হয়নি। কুষক মহসিন রেজা বলেন ২০২০ সালে তাদের গরু চুরির ঘটনায় তার বড়ভাই মিজানুর রহমান ফুলবাড়ী থানায় চুরির মামলা দায়ের করায়, তৎকালিন থানা পুলিশ গরু চোর সন্দেহে ৫জনকে আটক করে, কিন্তু তারা সকলে জামিনে বেরিয়ে এসেছে। তিনি আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেন চোরেরা জামিনে বেরিয়ে এসে আবারো তাদেরসহ গ্রামবাসীদের গরু চুরি করছে।

এলুয়াড়ী ইউপি চেয়ারম্যান মওঃ নবীউল ইসলাম বলেন গ্রামের গরিব কৃষক গবাদিপশু পালন করে তাদের জিবীকা নির্বাহ করে, কিন্তু একের পর এক গরু চুরির ঘটনায় তারা গরু পালন করতে এখন আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে।

উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মঞ্জয রায় চৌধুরী চুরি যাওয়া গরু উদ্ধার করতে আইনশৃংখলা বাহিনীর উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

এই বিষয়ে জানতে চাইলে ফুলবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শন (তদন্ত) শফিকুল ইসলাম বলেন চুরি যাওয়া গরু উদ্ধার করতে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে, বিভিন্ন এলাকায় গোয়েন্দা নজরদারী দেয়া হচ্ছে বলে তিনি জানান।