পরিবার পরিজন নিয়ে বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি গেটের সামনে অবস্থান কর্মসূচি শুরু

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি শ্রমিকদের আন্দোলন অব্যহত

দিনাজপুর

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধিঃ পবিত্র ঈদ উপলক্ষে কয়েকদিন বিরোতীর পর আবারো ধারাবাহিক ভাবে চলছে দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির শ্রমিকদের আন্দোলন।

স্ব,স্ব স্থানে কাজে যোগদান ও বকেয়া বেতন-ভাতার দাবীতে চলতি সনের ২২ এপ্রিল থেকে শুরু হওয়া শ্রমিকদের আন্দোলন পবিত্র ঈদ-উল ফিতর এর জন্য ৪দিন বন্ধ রেখে গত তিন দিন থেকে আবোরো শুরু হয়েছে।

আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার সকাল থেকে খনির প্রধান ফটকে অবস্থান কর্মসূচি ও বিক্ষোভ মিছিল করেন আন্দোলনরত খনি শ্রমিকরা।

আন্দোলনরত শ্রমিকরা বলেন ২০২০ সালে করোনার প্রাদুর্ভাবের কারনে শ্রমিকদেও ছুটি দিয়ে খনি লকডাউর কওে দেয়, খনি কর্তৃপক্ষ, এরপর করোনা শিথিল হলে অর্ধেকের কম শ্রমিকে করেনটাইনসহ নানা পরিক্ষার পর কাজে নিলেও অধিকাংশ শ্রমিক বসে ছিল, বর্তমানে করোনার প্রদুর্ভাব কমে গেলেও বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিকে রেখেচে লকডাউন করে।

তারা বলেন করোনার সময় যে শ্রমিকরা পরিবার পরিজনকে রেখে খনিতে কাজ করেছে, আন্দোলন করার জন্য তাদেরকের বের করে দেয়া হয়েছে। এই জন্য তারা স্ব-স্ব স্থনে কাজে যোগদান ও বকেয়া বেতন-ভাতার জন্য আন্দোলনে নেমেছেন।

অবস্থান কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন বড়পুকুরিয়া খনি শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি রবিউল ইসলাম রবি, সাধারন সম্পাদক আবু সুফিয়ান, সাবেক সাধারন সম্পাদক নুর ইসলামসহ বিভিন্ন স্থরের শ¤্রমিক নেতৃবৃন্দরা।

এদিকে শ্রমিক আন্দোলনের বিষয়ে জানতে চাইলে খনিটির ব্যবস্থাপনা পরিচালক বলেন আন্দোলনরত শ্রমিকরা খনির চিনা ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের অধিনে কর্মরত, ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের সাথে আলোচনা কলে বিষয়টি নিস্পত্তি করা হবে বলে জানান।