দিনাজপুরে পাগলীটা মা হলো, বাবা হলোনা কেউ...

দিনাজপুরে পাগলীটা মা হলো, বাবা হলোনা কেউ…

দিনাজপুর

দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর সদরে মানসিক ভারসাম্যহীন ভবঘুরে এক নারী ফুটফুটে একটি সন্তান জন্ম দিয়েছেন।

বুধবার (২০ এপ্রিল) বিকেল ৩টার দিকে মা ও সন্তানকে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এদিন বেলা ১১টার দিকে জেলা সদর উপজেলার ৩ নম্বর ফাজিলপুর ইউনিয়নের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের পূর্বপাড়গাঁও গ্রামে ওই নারী নবজাতক প্রসব করেন।

পূর্বপাড়গাঁও গ্রামের সাবিনা বেগম, জ্যো¯œা বেগম ও সুচিত্র রানী রায় জানান, গতকাল (মঙ্গলবার) রাতে খুব বৃষ্টি হয়েছে। এর মধ্যে ভোর বেলা একজনের গোঙ্গানীর শব্দ আমরা পাই। পরে গিয়ে দেখি এক পাগলী (মানসিক ভারসাম্যহীন) প্রসব বেদনায় কাতরাচ্ছিল। পরে এলাকার অন্যান্য নারীদের সহযোগিতায় বেলা ১১টায় এক পুত্র সন্তান প্রসব করানো হয়। পরে বিষয়টি ইউপি চেয়ারম্যান অভিজিৎ বসাককে জানানো হয়।

তিনি ৩নং ওয়ার্ডের মেম্বার দেবেশ চন্দ্র রায়কে ঘটনাস্থলে পাঠিয়ে দেন। পরে একটি এ্যাম্বুলেন্স যোগে প্রসুতী ও নবজাতককে দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

তারা আরও জানান, ওই প্রসুতী গতকাল রাতে ওই এলাকায় আসছে। এর আগে তাকে পূর্বপাড়গাঁও গ্রামে দেখা যায়নি। এছাড়াও তার কোন ধরনের পরিচয় পাওয়া যাচ্ছে না। প্রসুতীকে জিজ্ঞাসা করা হলে সে কোন কিছু বলতে পারছে না।

হাসপাতালের কর্তব্যরত নার্সরা জানিয়েছে- প্রসুতী বর্তমানে সুস্থ্য রয়েছে। তবে শিশুটিকে ঠান্ডা লেগেছে।

এদিকে ইউপি মেম্বার দেবেশ চন্দ্র রায় জানান, বিষয়টি জানতে পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রসুতী ও নবজাতকে উদ্ধার করে দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেছি। বর্তমানে তাদের চিকিৎসা চলছে।