তালেবান ঠেকাতে অস্ত্র হাতে নিচ্ছে সাধারণ আফগানরা

তালেবান ঠেকাতে অস্ত্র হাতে নিচ্ছে সাধারণ আফগানরা

আন্তর্জাতিক

যুক্তরাষ্ট্র ও এর নেতৃত্বাধীন ন্যাটো জোটের সেনারা আফগানিস্তান ছেড়ে চলে যেতে শুরু করেছে। এর মধ্যেই সেখানে তালেবানের দৌরাত্ম বেড়ে গেছে। তাদের অগ্রযাত্রা ঠেকাতে হাতে অস্ত্র তুলে নিতে শুরু করেছে সাধারণ আফগান নাগরিকরা।

জানা যায়, আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুলের উত্তরে পারওয়ান প্রদেশের উঁচু পাহাড়ের এক জায়গায় ছোট একটি তালেবান বিরোধী দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন ৫৫ বছর বয়সী দোস্ত মোহাম্মদ সালাঙ্গি। হাতে তার অস্ত্র, আর কণ্ঠে কবিতা। মুখে ঘন দাড়ি, মাথায় ঐতিহ্যবাহী টুপি পরা এই আফগান দেশে তালেবানের উত্থান ঠেকাতে বদ্ধপরিকর।

তালেবানকে দেওয়া এক হুঁশিয়ারি বার্তায় তিনি জানান, তালেবানরা যদি আমাদের ওপর যুদ্ধ চাপিয়ে দেয়। আমাদের ওপর অত্যাচার চালায়। নারীদেরকে তাদের সম্পত্তি মনে করে। জনগণের সম্পত্তি দখল করতে থাকে তাহলে আমাদের ৭ বছর বয়সী বাচ্চারাও অস্ত্র হাতে নেবে এবং রুখে দাঁড়াবে।

তালেবানের বিরুদ্ধে লড়তে প্রস্তুত শত শত সাবেক ‘মুজাহিদীন’ যোদ্ধা ও সাধারণ মানুষদেরই একজন এই সালাঙ্গি। যারা আফগানিস্তানে তালেবানের পুনরুত্থান ঠেকাতে সেনাবাহিনীকে সাহায্য করার জন্য অস্ত্র হাতে তুলে নেওয়ার তাগিদ অনুভব করেছেন।

তালেবানবিরোধী নেতাদের দলে যোগ দেওয়া এক ছাত্র ফরিদ মোহাম্মদ জানান, দেশকে আমাদেরই রক্ষা করতে হবে। বিদেশি শক্তি যখন আমাদের ছেড়ে চলে গেছে, তখন আমরা লড়াই করা ছাড়া আর কোনও পথ দেখছি না।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য