হজযাত্রা বাতিল করলো ইন্দোনেশিয়া

হজযাত্রা বাতিল করলো ইন্দোনেশিয়া

আন্তর্জাতিক

গত বছরের ন্যায় এবারও হজ যাত্রীদের সৌদি আরবে যেতে না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে জনসংখ্যার দিক দিয়ে বিশ্বের সবচেয়ে বড় মুসলিম দেশ ইন্দোনেশিয়া। আজ বৃহস্পতিবার (৩ জুন) মহামারি করোনাভাইরাসের উদ্বেগজনক পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় বলে জানিয়েছে দেশটির ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়। খবর প্রকাশ করেছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

মন্ত্রিপরিষদ সচিবালয়ের তথ্যের বরাত দিয়ে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ইন্দোনেশিয়ার অনেক মানুষের কাছেই তাদের জীবনের অন্যতম কাঙ্খিত ইভেন্ট হলো হজ। মুসলমানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় এই অনুষ্ঠানে অংশ নিতে কোটা পদ্ধতির কারণে দেশটির অনেককেই গড়ে প্রায় ২০ বছর পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয়।

এক বিবৃতিতে ধর্মমন্ত্রী ইয়াকুত চোলিল কওমাস বলেন, হজ যাত্রার সুরক্ষা এবং মহামারির কারণে সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যে, এই বছরও ইন্দোনেশিয়ান নাগরিকদের হজে অংশগ্রহণ করার অনুমতি দেওয়া হবে না। তাছাড়া সৌদি আরবও বিষয়ে নিয়ে এখন পর্যন্ত কোনো অনুমতি দেয়নি।

কেবল ইন্দোনেশিয়ার ক্ষেত্রে নয়, বরং কোনো দেশই এখনো হজের কোটা বরাদ্দ পায়নি। কারণ, এখন পর্যন্ত সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়নি। তাই হজের উদ্দেশে ইতিমধ্যে যারা অর্থ প্রদান করেছেন তারা আগামী বছর হজ পালনের সুযোগ পাবেন, যোগ করেন তিনি।

অন্যদিকে, করোনা মহামারি নিয়ন্ত্রণে আসায় ১১টি দেশের ওপর থেকে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়েছে সৌদি আরব। গত রবিবার থেকেই দেশগুলোর পর্যটকরা উপসাগরীয় দেশটিতে প্রবেশ করতে পারছেন। তবে কোয়ারেন্টিন বিধি মেনে চলতে হচ্ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য