পরীক্ষা গ্রহণ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের হল খুলে দেওয়ার দাবিতে হাবিপ্রবি শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

পরীক্ষা গ্রহণ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের হল খুলে দেওয়ার দাবিতে হাবিপ্রবি শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

দিনাজপুর

করোনা মহামারীর কারণে স্থগিত রাখা সকল ব্যাচের ফাইনাল পরীক্ষা গ্রহণ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলসমূহ খুলে দেয়াসহ বেশ কয়েক দফা দাবিতে মানববন্ধন করেছেন দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। সোমবার (২৪ মে ) সকাল ১১ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে ঢাকা- দিনাজপুর মহাসড়ক ব্যানার ও প্র্ড প্লাকার্ড হাতে শিক্ষার্থীরা মানববন্ধন করেন ।

এসময় শিক্ষার্থীরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে বন্ধ থাকা সকল ব্যাচের সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা স্বশরীরে গ্রহণসহ ৪ দফা দাবি জানান। বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক হলগুলো অতিদ্রুত খুলে দেওয়া, প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে ভ্যাক্সিনেশনের আওতায় আনা , সেশন জট এড়াতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে জোর দাবি জানানো হয়।

খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ ও সংরক্ষণ বিভাগের ১৭ ব্যাচের শিক্ষার্থী জুলকিফল ইসলাম বলেন, করোনা ভাইরাসের জন্য আমাদের সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা ও আবাসিক হলগুলো বন্ধ রয়েছে। এর ফলে আমরা সেশন জটের মধ্যে পড়ছি। আর আবাসিক হলগুলো বন্ধ থাকায় বাহিরে অবস্থান করা অত্যন্ত ব্যয়বহুল এবং অনিরাপদ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এসব সমস্যা সমাধানে কর্তৃপক্ষের সঠিক হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

মানববন্ধন শেষে প্রশাসনিক ভবনের সিঁড়িতে অবস্থান করেন শিক্ষার্থীরা। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টারের মাধ্যমে ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য বরাবর একটি স্মারকলিপি প্রদান করেন তারা। তাদের এই দাবিসমূহ ৪৮ ঘন্টার মধ্যে মেনে নেওয়া না হলে কঠোর থেকে কঠোরতম আন্দোলনে যেতে বাধ্য হবেন বলেও জানানো হয়।

উল্লেখ্য, গত বছরের ১৭ মার্চ থেকে এখনো পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় ও শিক্ষা কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। অনলাইনের মাধ্যমে এক থেকে দুটি সেমিস্টার সম্পন্ন হলেও সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা গুলো স্থগিত রাখা হয়েছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য