মালি-তে একসঙ্গে ৯ সুস্থ সন্তান প্রসব করেছে এক মা

মালি-তে একসঙ্গে ৯ সুস্থ সন্তান প্রসব করেছে এক মা

আন্তর্জাতিক

মহামারিতে বিধ্বস্ত চারিদিক। মৃত্যুর মিছিল বন্ধ হওয়ার নাম নেই। এমন পরিস্থিতিতে একসঙ্গে ৯টি নতুন প্রাণকে পৃথিবীর আলো দেখালেন এক নারী। একটা-দুইটা কিংবা তিন-চারটা নয়, একসঙ্গে ৯ সন্তানের জন্ম দিলেন তিনি, যা কিনা চিকিৎসকদেরও কল্পনার বাইরে ছিল। এমন অবাক কাণ্ড ঘটেছে পশ্চিম আফ্রিকার দেশ মালি-তে।

মালির বাসিন্দা ২৫ বছরের হালিমা সিসে মঙ্গলবার একসঙ্গে ফুটফুটে এসব সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী ফ্যান্টা সিবি জানিয়েছেন, পাঁচ কন্যা এবং চার পুত্র সন্তানের জন্ম দিয়েছেন হালিমা। মা ও তার সন্তানরা সুস্থ রয়েছেন।

হালিমার এই গর্ভাবস্থা নিয়ে বিগত কয়েক মাস ধরেই আলোচনা চলছিল। গর্ভবতী হওয়ার পর যখন চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে যান হালিমা, তখন আল্ট্রাসাউন্ডে তার সাত সন্তানের অস্তিত্ব ধরা পড়ে। পরে সেখান থেকে তাকে অধিকতর উন্নত চিকিৎসার জন্য মরক্কোতে পাঠানো হয়। সেখানেও আল্ট্রাসাউন্ডে সাত শিশুর অস্তিত্ব ধরা পড়ে।

চিকিৎসার জন্য ২০২১ সালের মার্চ থেকে মরক্কোতে রয়েছেন হালিমা। স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখে অস্ত্রোপচার করেই তার প্রসবের সিদ্ধান্ত নেন চিকিৎসকরা। সেই মতো হাসপাতালের প্রসব বিভাগে ভর্তি করানো হয় তাকে। সেখানেই একে একে ৯টি সন্তান প্রসব করেন তিনি।

একসঙ্গে ৩টি বা ৪টি সন্তান প্রসবের বহু উদাহরণ রয়েছে। তবে একসঙ্গে ৯টি সন্তান প্রসবের তেমন নজির না থাকলেও, এই ঘটনা একেবারেই বিরল নয়। ১৯৭১ সালে অস্ট্রেলিয়ার সিডনিতে এক নারী একসঙ্গে ৯ সন্তানের জন্ম দিয়েছিলেন। কিন্তু জন্মের পর ছয় দিনের মধ্যেই একে একে সবার মৃত্যু হয়।

তারও আগে ১৯৯৯ সালে মালয়েশিয়ার এক নারী ৯ সন্তানের জন্ম দেন। কিন্তু জন্মের ছয় ঘণ্টার মধ্যেই সবার মৃত্যু হয়।

চিকিৎসকদের মতে, মানব শরীর একসঙ্গে এতো সন্তান প্রসবের জন্য উপযুক্ত নয়। যে কারণে ৯ মাস জরায়ুতে থাকলেও এসব শিশুর সম্পূর্ণ বৃদ্ধি হয় না। সেই কারণে বেশিরভাগ সময়ে জরায়ুতেই মৃত্যু হয় তাদের। অনেকে আবার জন্মের পরই মারা যায়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য