কাবুল দূতাবাস কর্মীদের আফগানিস্তান ছাড়ার নির্দেশ যুক্তরাষ্ট্রের

কাবুল দূতাবাস কর্মীদের আফগানিস্তান ছাড়ার নির্দেশ যুক্তরাষ্ট্রের

আন্তর্জাতিক

কাবুল দূতাবাসে কর্মরত আবশ্যিক নয় এমন কর্মীদের আফগানিস্তান ত্যাগের নির্দেশ দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ক্রমবর্ধমান হুমকির কথা উল্লেখ করে এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার প্রতিবেদন থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এ মাসের শুরুর দিকে এক ঘোষণায় জানান, আগামী ১১ সেপ্টেম্বরের আগেই আফগানিস্তান থেকে সব মার্কিন সেনা প্রত্যাহার করা হবে।

আগামী ১ মে থেকে আফগানিস্তান থেকে মার্কিন সেনা প্রত্যাহার শুরু হবে বলেও জানান তিনি। এই দুই সপ্তাহের মাথায় দূতাবাস কর্মীদের আফগানিস্তান ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হলো।

মার্কিন পররাষ্ট্র দফতরের এক ভ্রমণ উপদেশে বলা হয়েছে, অন্য কোনও জায়গা থেকে কাজ চালাতে পারে এমন কর্মীদের আফগানিস্তান ছাড়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কাবুলে ভারপ্রাপ্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত রস উইলসন বলেছেন, কাবুলে ক্রমবর্ধমান সহিংসতা এবং হুমকির প্রেক্ষিতে পররাষ্ট্র দফতর এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তিনি জানান, অল্প সংখ্যক কর্মী সরিয়ে নেওয়া হবে আর দূতাবাসের কার্যক্রমও সচল থাকবে।

মার্কিন সেন্ট্রাল কমান্ডের জেনারেল কেনেথ ম্যাকেঞ্জি জানিয়েছেন, ‘আফগানিস্তানে দূতাবাস সচল থাকবে। সেখানে সামান্য কয়েকজন সেনা থাকবেন দূতাবাসের সুরক্ষার জন্য।’

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য