মোঃ জাকির হোসেন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) সংবাদদাতা ॥ নীলফামারীর প্রথম শ্রেণীর সৈয়দপুর পৌরসভার আসন্ন নির্বাচনে অংশগ্রহণকারী একজন ওয়ার্ড কাউন্সির প্রার্থীর মৃত্যুতে উক্ত পদে ভোট স্থগিত করা হয়েছে। নীলফামারী জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সৈয়দপুর পৌরসভা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার কর্তৃক এ সংক্রান্ত পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত এই পদে ভোট স্থগিত থাকবে।

সৈয়দপুর পৌরসভার ১২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদের প্রার্থী সাবেক ওয়ার্ড কমিশনার সুলতান খান ঢেনু (পাঞ্জাবী মার্কা) ১ জানুয়ারী শুক্রবার রাতে হৃদক্রিয়া বন্ধ হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। তিনি তাঁর নতুন বাবুপাড়া বিজামান রোডস্থ বাড়িতে সন্ধায় অস্স্থু হলে তাৎক্ষনিক সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাঁর অবস্থার অবনতি দেখে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে রাত সাড়ে ১১ টার দিকে তিনি ইনতেকাল করেন। (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। পরদিন শনিবার বাদ জোহর জামে মসজিদ প্রাঙ্গনে জানাযা শেষে তাঁকে হাতিখানা কবরস্থানে দাফন করা হয়। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৫ বছর। তিনি স্ত্রী, দুই ছেলে ও এক মেয়ে সহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন।

তার মৃত্যুতে ওই পদে ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়েছে। এই ওয়ার্ডে অন্যান্য কাউন্সিলর প্রার্থীরা হলেন, বর্তমান কাউন্সিলর আব্দুল খালেক সাবু (গাজর প্রতীক), খালিদ আজম আশরাফী (ব্রীজ প্রতীক), নুর মোহাম্মদ ওয়ালিউর রহমান রতন (উটপাখী প্রতীক), অবঃ সার্জেন্ট মোঃ মশিউর রহমান (ডালিম প্রতীক)।

এ ব্যাপারে সৈয়দপুর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ রবিউল আলম মুঠোফোনে জানান, একজন প্রার্থীর মৃত্যুর কারণে সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডে শুধুমাত্র ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে ভোট গ্রহণ স্থগিত থাকবে। অন্যপদের প্রার্থীদের অর্থাৎ মহিলা কাউন্সিলর ও মেয়র পদে ওই ওয়ার্ডে ভোট অনুষ্ঠিত হবে। তাদের ভোট স্থগিত করার কোন নিয়ম নাই। তাই অন্যান্য পদে যথারীতি আগামী ১৬ জানুয়ারী ভোট গ্রহণ করা হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য