দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট উপজেলায় নাবিল পরিবহনে ভারতীয় আমদানি নিষিদ্ধ ৫৮ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় সুপারভাইজার ও হেলপারকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ।

দিবাগত রাত ১টার সময় দিনাজপুর জেলার পুরিশ সুপার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন, বিপিএম,পিপিএম (বার) নির্দেশনা মোতাবেক ঘোড়াঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ আজিম উদ্দিন এর নেতৃত্বে উপ-পরিদর্শক জিয়াউর রহমানের নেতৃত্বে উপ-পরিদর্শক খুরশিদ আলম, হাবিবুর রহমান, ফজলার রশিদ ও ফারুকুজ্জামান সহ ঘোড়াঘাট থানা পুলিশের একটি দল ঢাকা-দিনাজপুর মহাসড়কের খেতাবমোড় এলাকায় চেকপোষ্ট স্থাপন করে তল্লাশি অভিযান শুরু করে।

এ সময় দিনাজপুর থেকে আগত ঢাকাগামী নাবিল কোচ (ঢাকা মেট্রো-ব-১৪-২৩৯২) থামিয়ে তল্লাশি চালিয়ে সিটের ভিতরে বাংকারে পৃথক দুটি ব্যাগ থেকে ৫৮ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার করে।

পরে ফেন্সিডিল পাঁচারের অভিযোগে গাড়ীটির সুপারভাইজার ও হেলপারকে গ্রেফতার করে পুলিশ।গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা রুজু করে দিনাজপুর জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

গ্রেফতারকৃত সুপারভাইজার হাফিজুর রহমান (৩৯) দিনাজপুর জেলার চিরিরবন্দর উপজেলার দক্ষিণ সুখদেবপুর গ্রামের সোহরাব আলীর ছেলে ও হেলপার লিমন ইসলাম (২৩) পার্বতীপুর উপজেলার যশাই সৈয়দপুর গ্রামের মানিক ইসলামের ছেলে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ঘোড়াঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আজিম উদ্দিন বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামীরা স্বীকার করেছেন যে, তারা দুজন যোগসাজসে নাবিল পরিবহনের সুপারভাইজার ও হেলপার যাত্রী পরিবহনের আড়ালে দীর্ঘদিন যাবত কৌশলে রাজধানী সহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ফেন্সিডিল পাঁচার করে আসছিল।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য