দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরের ঘোড়াঘাটে ২য় স্ত্রী প্রতিমা রানী স্বামী বাসুদেব কর্মকারের (৩৭) শরীরে এসিড নিক্ষেপ করে দেড় লাখ টাকা ছিনিয়ে নিয়েছে । ঘটনাটি ঘটেছে গত বুধবার ঘোড়াঘাট পৌর সভার নয়া পাড়া এলাকায় কোবাত কর্মকারের বাড়িতে । প্রতিমা রানী ও তার ছোটভাই প্রকাশ, কাকাতো ভাই বিকাশ ও গোপাল মিলে বাসুদেবের শরীরের বিভিন্ন স্থানে এসিড নিক্ষেপ করে।

বাসুদেব বগুড়ার ধুনট উপজেলার পেচিবাড়ি গ্রামের নিরাঞ্জন কর্মকারের ছেলে। চিকিৎসাধীন জানান,বাসুদেব কর্মকারের ১ম স্ত্রী মারা গেলে সে ঘোড়াঘাট পৌর সভার নয়া পাড়া এলাকায় কোবাত কর্মকারের মেয়ে প্রতিমা রানী রানীকে (৩৩) ২য় স্ত্রী হিসেবে বিয়ে করে।

তারা ভাড়া বাসায় থাকত। ৪ মাস পূর্বে স্ত্রী প্রতিমা রানী স্বামীর অজান্তে ৬৫ হাজার টাকা, স্বর্না লংকার সহ কাঁসার বাসনপত্র নিয়ে বাবার বাড়িতে যায়।

বাসুদেব কর্মকার দেড় লাখ টাকায় নিজ বাড়ি ও জমি বিক্রি করে, স্ত্রী প্রতিমা রানী জানতে পেরে গত বুধবার বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে স্বামী বাসুদেবকে বাবার বাড়িতে ডেকে নিয়ে যায়।

এক পর্যায়ে প্রতিমা রানী ও তার ছোট ভাই প্রকাশ,কাকাতো ভাই গোপাল চন্দ্র, বিকাশ চন্দ্র মিলে বাসুদেব কর্মকারের শরীরের বিভিন্ন স্থানে এসিড নিক্ষেপ করে দেড় লাখ টাকা ছিনিয়ে নিয়ে ৩ দিন পর বাসদেবকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়।

রবিবার বিষয়টি তাৎক্ষণিক ঘোড়াঘাট থানায় ্অবগত করনা হলে পুলিশ হাসপাতালে ভর্তির পরামর্শ দেন। ঘটনার চার দিন অতিবাহিত হলেও, এসিড দগ্ধ বাসুদেব কর্মকারের খোঁজ-খবর কেউ নেয়নি। সেবা করার মত তার নিতটতম আতœীয় স্বজন এখানে কেউ নাই। তার ্অবস্থা আশংকাজনক। মামলার প্রস্তুতি চলছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য