ব্রাজিল, নিউ জিল্যান্ড ও বলিভিয়া থেকে আমদানি করা হিমায়িত গরুর মাংস, ভূঁড়ি ও এসব পণ্যের বাক্সে করোনাভাইরাস পাওয়া গেছে বলে চীনের পূর্বাঞ্চলীয় শহর জিনানের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে।

শনিবার রাতে চীনের শানডং প্রদেশের জিনান নগর স্বাস্থ্য কমিশন তাদের ওয়েবসাইটে দেওয়া এক বিবৃতিতে একথা জানিয়েছে।

সাংহাইয়ের ইয়াংশান বন্দরের কাস্টমস হয়ে পণ্যগুলো এসেছে, বিবৃতিতে এমনটি জানানো হলেও যে কোম্পানিগুলো এসব পণ্য পাঠিয়েছে তাদের নাম উল্লেখ করা হয়নি; জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

এ ঘটনার পর দুষিত এসব পণ্যের সংস্পর্শে আসা ও সম্পর্কিত অন্যান্য ব্যক্তিসহ সাড়ে সাত হাজারেরও বেশি লোকের করোনাভাইরাস পরীক্ষা করা হয় আর তাদের সবার ফল নেগেটিভ এসেছে বলে বিবৃতিতে বলা হয়েছে।

গত সপ্তাহে চীনের কর্তৃপক্ষ লানচো শহরে সৌদি আরব থেকে আমদানি করা চিংড়ির, উহানে ব্রাজিল থেকে আমাদানি করা গরুর মাংসের এবং শানডং ও জিয়াসু প্রদেশে আর্জেন্টিনা থেকে আমদানি করা গরুর মাংসের বাক্সে করোনাভাইরাস পেয়েছিল।

বিশ্বে গরুর মাংসের শীর্ষ ক্রেতা দেশ চীন আর ব্রাজিল ও আর্জেন্টিনা বৃহত্তম সরবরাহকারী।

হিমায়িত গরুর মাংস থেকে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি কম বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও); কিন্তু আমদানি করা খাদ্য পণ্যে ভাইরাসটি শনাক্ত হওয়ার পর চীন সবসময় সতর্কতা জারি করে সংশ্লিষ্ট পণ্য আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা জারি করে আসছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য