আমার ভাসুর ফার্মের মুরগি খেতে চান না, উনার নাকি মজা লাগে না। আমি এরকম অনেককেই চিনি যারা এই একই অভিযোগ করেন। আমি এখন ফার্মের মুরগি দিয়ে অসাধারণ স্বাদের চিকেন দো পেঁয়াজা রান্না করে দেখাবো। আমার দর্শকদের কাছে আমার চ্যালেঞ্জ, আমার রেসিপি হুবহু ফলো করে রান্নাটি করবেন, ফার্মের মুরগি যারা খেতে পছন্দ করেন না, তাদের খাওয়াবেন আর দেখবেন, ফার্মের মুরগির টেস্ট নিয়ে তাদের মতের পরিবর্তন হয় কি-না। করণ আমার ভাসুরের কিন্তু মতের পরিবর্তন হয়ে গিয়েছে আমার এই রেসিপিটি খাওয়ার পরে।

তৈরী করতে লাগছে –
⚪ মুরগির মাংস ১ কেজি
⚪ পিঁয়াজ কুচি ১ কাপ
⚪ টমেটো কুচি ১ কাপ
⚪ লবণ: মাংস মেরিনেট করতে ১ চা চামুচ, রান্নায় ০.৫ চা চামুচ
⚪ আদা বাটা ১ টেবিল চামুচ
⚪ রসুন বাটা ১ টেবিল চামুচ
⚪ শুকনো মরিচের গুঁড়ি ১ টেবিল চামুচ
⚪ হলুদের গুঁড়ি ০.৫ চা চামুচ
⚪ ধনে গুঁড়ি ১ টেবিল চামুচ
⚪ জিরা গুঁড়ি ১ টেবিল চামুচ
⚪ গরম মসলার গুঁড়ি ১ চা চামুচ
⚪ তেজ পাতা ১ টি
⚪ ছোটো এলাচ ৪/৫ টি
⚪ দারুচিনি ৩/৪ টুকরো
⚪ লবঙ্গ ৫/৬ টি
⚪ গোল মরিচ ১০/১২ টি
⚪ কাঁচি মরিচ ৫/৬ টি
⚪ ১ টা বড় পেঁয়াজের পাপড়ি
⚪ রান্নার তেল ০.৫ কাপ

✔ চাইনিজ/ইন্ডিয়ান রসুন মেশিনে বাটলে অনেক সময় সবুজ হয়, আবার বেটে ফ্রিজে রাখলেও সবুজ হয়। আমি মেশিনে করি দেখে মাঝে মাঝে আমার রসুন বাটা সবুজ হয়। অনেক কায়দা করে এটাকে আবার সাদা রাখা যায়। যেহেতু রান্নায় দেয়ার পরে রঙ এর কোনো গুরুত্ব থাকছে না, তাই আমি রসুন বাটার রঙ নিয়ে কোনো মাথা ঘামাই না।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য