সুগন্ধির ব্যবহারে রুচির পরিচয় মেলে। নিজেকে মোহনীয় ও অন্যের কাছে আকর্ষণীয় করে তোলে সুগন্ধি।

তবে সুগন্ধি ব্যবহারের আগে সঠিক পদ্ধতি জেনে নেওয়া উচিত। না হয় সুগন্ধি ব্যবহারের মূল উদ্দেশ্যটাই পূরণ হবে না। সুন্দর গন্ধটাই গায়ে ধরবে না।

রূপসজ্জাবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে সম্প্রতি সুগন্ধি ব্যবহারের কিছু পদ্ধতি উল্লেখ করা হয়েছে। সেগুলো নিম্নরূপ-

সুগন্ধি গায়ে দেবেন কিভাবে: সুগন্ধি স্প্রে করার সময় শরীর ভিজিয়ে ফেলা খুব সাধারণ ও ভুল উপায়। পাঁচ থেকে সাত সেন্টিমিটার দূর থেকে সুগন্ধি স্প্রে করা উচিত। এর চেয়ে বেশি দূর থেকে স্প্রে করা মানে হল সুগন্ধির অপচয়।

কাপড়ে ব্যবহার করা: সরাসরি কাপড়ে সুগন্ধি স্প্রে করা ভুল। এইভাবে ব্যবহার করা হলে সুগন্ধি দীর্ঘস্থায়ী হয় না এবং কাপড়েও দাগ পড়ে যায়। যা দেখতেও ভালো লাগে না ।

বেশি স্প্রে করা: খুব বেশি সুগন্ধি ব্যবহার করা কেবল সবার মনোযোগ আকর্ষণ করে না বরং অস্বস্তিও তৈরি করে। তাছাড়া খুব বেশি সুগন্ধির ব্যবহার মাথাব্যথারও কারণ হতে পারে।

ভুল স্থানে সুগন্ধির ব্যবহার: সুগন্ধি সাধারণত শরীরের ‘পালস পয়েন্ট’য়ে ব্যবহার করতে হয়, যেখানে শরীরের তাপ উৎপন্ন হয় এবং সুগন্ধির ছড়ায়। যেমন- হাতের কবজি, ‘কলার বোন’ বা কণ্ঠাস্থি ও নাভির অংশে।

সুগন্ধির সঠিক ব্যবহার করতে চাইলে তা হাত ও চুলের উপরের অংশে অথবা শার্টের কলারে ব্যবহার করুন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য