দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুর জেলার ফুলবাড়ী উপজেলায় গোপনে ও প্রকাশ্যে প্রাইভেট কোচিং সেন্টার বন্ধসহ প্রাইভেটের নামে অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের প্রতিবাদে গতকাল রবিবার মানববন্ধনসহ ইউএনও’র কাছে অভিযোগ দিয়েছেন স্থানীয় স্কুলের শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীরা ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদ চত্বরে সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত ঘণ্টাব্যাপী মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন।

মানববন্ধন কর্মসূচি চলাকালে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, রাশেদ ইসলাম সোহান, স্নিগ্ধা ইসলাম, প্রান্ত কুমার দাস, শিলা আক্তার, আল মোস্তাফিন ইমন প্রমুখ।

শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেন, বৈশ্বিক মহামারী করোনার প্রাদুর্ভাবে সরকার শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সুরক্ষার জন্য দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান গত মার্চ মাস থেকে বন্ধ রাখাসহ প্রাইভেট ও কোচিং নিষিদ্ধ করেছেন। কিন্তু কিছু সংখ্যক শিক্ষক ফুলবাড়ী উপজেলার পৌরশহরসহ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় গোপনে ও প্রকাশ্যে প্রাইভেট ও কোচিং সেন্টার চালু রেখেছেন।

যেগুলোতে সকাল ৭ টা থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত চলছে প্রাইভেট ও কোচিং বাণিজ্য। বিষয়টি নিয়ে ইতোপূর্বে ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এবং উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাকে জানানো হলেও তারা কোন পদক্ষেপ নিচ্ছেন না। ফলে ঝুঁকির মধ্যেই চলছে প্রাইভেট ও কোচিং সেন্টারগুলোর বাণিজ্য।

একই সাথে বর্তমানে যেসব প্রাইভেট ও কোচিং সেন্টার চলছে সেগুলোতে মাত্রাতিরিক্ত অর্থ আদায় করা হচ্ছে। চাহিদানুযায়ী টাকা দিতে শিক্ষার্থীরা বাধ্য হচ্ছেন। এ কারণে দ্রুত প্রাইভেট ও কোচিং সেন্টারগুলো বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রতি দাবি জানানো হয়েছে।

মানববন্ধন শেষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) কাছে একটি অভিযোগপত্র প্রদান করেন শিক্ষার্থীরা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য