উত্তর আমেরিকার দেশ কিউবার রাজধানী হাভানায় ফের করোনা সংক্রমণ দেখা দিয়েছে। সংক্রমণের মাত্রা অপেক্ষাকৃত কম হলেও ভাইরাসটির বিস্তার ঠেকাতে মঙ্গলবার থেকে সেখানে ১৫ দিনের কঠোর লকডাউন জারি করেছে কর্তৃপক্ষ।

লকডাউনের অংশ হিসেবে সন্ধ্যা ৭টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত কারফিউ জারি করা হয়েছে। লোকজনকে নিজ এলাকার বাইরে ঘোরাফেরা করতে নিরুৎসাহিত করা হচ্ছে। বেশিরভাগ স্থানীয় দোকানপাটের কর্মীদের বাইরের লোকজনের সঙ্গে কিছু কেনাবেনা করতে নিষেধ করা হয়েছে।

হাভানার কিছু বাসিন্দার অভিযোগ, এই লকডাউন তাদের দৈনন্দিন জীবনযাপনকে কঠিন করে তুলছে। খাবারদাবারের মতো অত্যাবশ্যকীয় নানা সামগ্রী কেনার সুযোগ সীমাবদ্ধ হয়ে পড়েছে।

ওয়ার্ল্ডোমিটারস-এর তথ্য অনুযায়ী, কিউবায় এখন পর্যন্ত চার হাজার ৬৫ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে ৯৫ জনের মৃত্যু হয়েছে।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহান থেকে ছড়িয়ে পড়ে করোনাভাইরাস। উৎপত্তিস্থল চীনে ৮৩ হাজারেরও বেশি মানুষ আক্রান্ত হলেও সেখানে ভাইরাসটির প্রাদুর্ভাব কমে গেছে। তবে বিশ্বের অন্যান্য দেশে এই ভাইরাসের প্রকোপ বাড়ছে। চীনের বাইরে করোনাভাইরাসের প্রকোপ ১৩ গুণ বৃদ্ধি পাওয়ার প্রেক্ষাপটে গত ১১ মার্চ দুনিয়াজুড়ে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

আমেরিকার দুই মহাদেশ ও দক্ষিণ এশিয়ায় সংক্রমণ এখনও দ্রুত বাড়ছে। অন্যদিকে ইউরোপকে লন্ডভন্ড করে দিয়ে করোনা কিছুটা স্তিমিত হলেও সেখানে আবারও নতুন করে রোগটির প্রাদুর্ভাব পরিলক্ষিত হচ্ছে। তবে আশার কথা হচ্ছে, এখন আক্রান্তের পর সুস্থ হওয়ার হার দ্রুত বাড়ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য