জলপাইয়ের তেল মাথার ত্বক ও চুল সুস্থ রাখতে সহায়তা করে।

সুস্থ চুল সুস্থ মাথার ত্বকের নির্দেশক। ঘন ঘন চুল পড়া দুর্বল মাথার ত্বকের লক্ষণ, অর্থাৎ চুলে প্রয়োজন পর্যাপ্ত পুষ্টি।

রূপচর্চা-বিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে চুলের যত্নে জলপাইয়ের তেলের উপকারিতা সম্পর্কে জানানো হল।

জলপাই তেল যেভাবে কাজ করে

– মাথার ত্বক ও চুলে জলপাইয়ের তেল মালিশ করা হলে তা চুলের গোড়ায় রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি করে। এতে চুল ঘন হয়ে দ্রুত ‍বৃদ্ধি পায়।

– মাথার ত্বক আর্দ্র রাখতে ও খুশকি দূর করতে জলপাইয়ের তেল উপকারী। এটা চুল পড়া কমাতেও সহায়তা করে। শুষ্ক মাথার ত্বকে জলপাইয়ের তেল ব্যবহার করে চিরুনির সাহায্যে আঁচড়ে নিন, মৃত কোষ দূর হবে।

– এই তেলে আছে মনোআনস্যাচুরেইটেড ফ্যাটি অ্যাসিড যা চুলের গোড়া শক্ত করতে ও চুল সুস্থ রাখতে সহায়তা করে।

চুলের বৃদ্ধিতে জলপাইয়ের তেলের ব্যবহার

– জলপাইয়ের তেল ব্যবহারের সবচেয়ে ভালো উপায় হল চুলের গোড়ায় মালিশ করা। এতে মাথার ত্বকের রক্ত সঞ্চালন বৃদ্ধি পায় ফলে চুল সুন্দর হয়।

– অন্যান্য তেল যেমন কাঠ-বাদামের তেল, কর্পূর, ক্যাস্টর তেল ইত্যাদির সঙ্গে জলপাইয়ের তেল ব্যবহার করতে পারেন। এটা চুলের বৃদ্ধির পাশাপাশি চুলকে মসৃণ, উজ্জ্বল ও কালো করতে সহায়তা করে।

– রং করার কারণে চুলের দুর্বলতা দূর করতে জলপাইয়ের তেল অনেকটা রক্ষা কবচের মতো কাজ করে। আগায় এই তেল ব্যবহার চুল আর্দ্র ও শক্তিশালি করতে সহায়তা করে।

– আগা ফাটার সমস্যা দূর করতে জলপাইয়ের তেল ব্যবহার করতে পারেন। চুলের আগায় জলপাইয়ের তেল মালিশ করলে মসৃণ হয় কেশ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য