প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের মহামারির ভয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার জাতীয় সংসদকে বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। পাশাপাশি কয়েকজন সংসদ সদস্য নিজেরাই কোয়ারেন্টাইনে চলে গেছেন। দেশটিতে একদিনে নতুন করে ৪০০ ব্যক্তি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর কোরিয়ার জাতীয় সংসদ আজ (বৃহস্পতিবার) বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

গত ডিসেম্বর মাসের শেষদিকে চীনের উহান শহরের করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ছড়িয়ে পড়ার পর চীনের বাইরে সর্বপ্রথম কোরিয়াতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ চিহ্নিত করা হয়। কিন্তু প্রথম থেকেই সচেতনমূলক ব্যবস্থা এবং ব্যাপকভাবে সংক্রমনের পরীক্ষা করার কারণে দ্রুত গতিতে ভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব হয়। বর্তমানে অবস্থার আবারো অবনতি হয়েছে এবং কোরিয়ার বেশিরভাগ প্রোটেস্ট্যান্ট চার্চগুলো থেকে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ছড়াচ্ছে।

নতুন করে যে সমস্ত সংক্রমণ দেখা দিচ্ছে তার বেশিরভাগই বৃহত্তর সিউল এলাকায় এবং গত কয়েক মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ রেকর্ড। গত কয়েক সপ্তাহ ধরে ৩০ থেকে ৪০ জন সংক্রমিত হয়েছে কিন্তু আজ ৪৪১ জন সংক্রমিত হয়েছে।

কোরিয়ার ক্ষমতাসীন দলের খবর কভার করেন- এমন একজন ফটোসাংবাদিকের দেহে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত করার পর কোরিয়ার সংসদ বন্ধ ঘোষণা করা হয়। আশঙ্কা করা হচ্ছে ক্ষমতাসীন দলের যেসব সংসদ সদস্য ওই ফটোসাংবাদিকের সংস্পর্শে এসেছেন তাদের অনেকেই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারেন। -পার্সটুডে

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য