মোঃ জাকির হোসেন, সৈয়দপুর (নীলফামারী) সংবাদদাতাঃ ১৫ আগষ্ট ‘ জাতীয় শোক দিবস ও ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণে ২১ আগষ্ট সন্ধা ৭ টায় রেলওয়ে মুর্তজা মিলনায়তনে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগ সৈয়দপুর উপজেলা শাখার উদ্যোগে দোয়া মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

উপজেলা শাখার আহবায়ক দিলনেওয়াজ খানের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন নীলফামারী জেলা আওয়ামিলীগের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সৈয়দপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোখছেদুল মোমিন।

আরো বক্তব্য রাখেন সৈয়দপুর পৌর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মোজাম্মেল হক, সহ সভাপতি অধ্যক্ষ হাফিজুর রহমান, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক জোবায়দুর রহমান শাহীন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আজমল হোসেন সরকার, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সানজিদা বেগম লাকী, সাবেক ছাত্রনেতা সুমন আরিফুর আনোয়ার, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক মোস্তফা ফিরোজ, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক কাজী নজরুল ইসলাম রয়েল, পৌর কৃষকলীগের সাধারন সম্পাদক আবু হেনা মোঃ মহসিন পুলক, পৌর ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক সিফাত সরকার, বোতলাগাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হেলাল চৌধুরী, কামারপুকুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, কৃষিবিদ মোবিনুল ইসলাম প্রমুখ।

আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন পৌর ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ, আওয়ামীলীগের অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতা কর্মী বৃন্দ। আলোচনা সভা শেষে দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া পরিচালনা করেন রেলওয়ে স্টেশন মসজিদের ইমাম আফসার আলী। সভাটি পরিচালনা করেন সৈয়দপুর উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক আসাদুল ইসলাম আসাদ।

সভায় বক্তারা বলেন, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা করে বিশ্ব নন্দিত জননেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের সভানেত্রী শেষ হাসিনা সহ আওয়ামীলীগের নেতৃস্থানীয় সকল নেতাদের হত্যার জঘন্যতম অপচেষ্টা করা হয়েছে। এ ঘটনায় আইভি রহমানসহ প্রায় অর্ধ শতাধিক নেতা নিহত হন ও সহস্রাধীক নেতা কর্মীরা আহত হয়ে পঙ্গুত্ব বরন করেন। আমরা আজ তাদের বিদেহী আত্মার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করে এ নৃশংস ঘটনার সাথে জড়িতদের দ্রুত বিচার দাবী করছি।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য