সকালে ঘুম থেকে উঠতে না উঠতেই অফিস যাওয়ার তাড়া শুরু হয়ে যায়। মাপা সময়ে সাজগোজ করা আর কতটাই বা সম্ভব! কিন্তু তা বলে কি একেবারে কিছু না করে সাদামাটা হয়ে অফিস যাবেন? কেমন হয় যদি সাজগোজের সময়টাকেই কমিয়ে 15 মিনিটের বদলে পাঁচ মিনিটে নামিয়ে আনতে পারেন? তা হলে তো দু’ দিকই রক্ষা পায়, তাই না? দেখে নিন কীভাবে পাঁচ মিনিটে একদম টিপটপ সেজে উঠতে পারবেন কোনও কমপ্রোমাইজ় না করেই!

লিকুইড ফাউন্ডেশনের বদলে বেছে নিন বিবি ক্রিম
তাড়াহুড়োর মধ্যে লিকুইড ফাউন্ডেশন ম্যানেজ করা মুশকিল! অনেকক্ষণ ধরে ব্লেন্ড না করলে কিছুতেই স্বাভাবিক মসৃণ ফিনিশ পাবেন না আপনি! বদলে বেছে নিন বিবি ক্রিম। ত্বকের খুঁত ঢেকে দেওয়া থেকে শুরু করে রোদের ক্ষতিকর প্রভাব থেকে ত্বককে বাঁচানো, আর সেই সঙ্গে মসৃণ ফিনিশ, সবটাই দেয় বিবি ক্রিম। মুখে আর গলায় ক্রিমের মতো মেখে নিলেই কার্যসিদ্ধি!

পুরো মেকআপ করুন একটাই লিপস্টিক দিয়ে
এমনিতেই অফিস যাওয়ার সময় মিনিমাল মেকআপের উপরেই ভরসা রাখি আমরা। তার জন্য একটা লিপস্টিকই যথেষ্ট! গোলাপি, কোরাল বা ব্রাউনের মতো একটা লিপ কালার বেছে নিন, আর সেটাই লাগিয়ে নিন চোখের পাতায়, ঠোঁটে আর গালে। আঙুল দিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে দিন। সুন্দর মনোক্রোম লুক পাবেন, রেডিও হয়ে যাবেন মাত্র দু’ তিন মিনিটের মধ্যে!

আইলাইনার নয়, বেছে নিন কাজল অথবা মাস্কারা
সকালের ব্যস্ততায় কাজলকালো চোখ পেতে ভরসা রাখুন কাজল পেনসিলের উপর। লিকুইড আইলাইনার ঘেঁটে যেতে পারে তাড়াহুড়োয়, কাজল পেনসিলে সে ভয় নেই। লাইনারের মতো করেই পরে নিন চোখে। অথবা কাজলের বদলে চোখের পল্লবে বুলিয়ে নিন মাস্কারা। চোখ একইরকম গাঢ় আর সুন্দর দেখাবে!

এবার ঘড়ির দিকে তাকান! মাত্র পাঁচ মিনিট কেটেছে, আর আপনার সাজ কমপ্লিট! – ফেমিনা

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য