দিনাজপুর সংবাদাতাঃ স্ট্রোক প্যারালাইজড দিনাজপুর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি দবিরুল ইসলাম (৫০) কে সুচিকিৎসার জন্য জেলা প্রশাসক সমাজ সেবার কার্যালয়ে মাধ্যমে ৫০ হাজার টাকার চেক প্রদান করেছেন । এ সময় আরোও একজন ক্যান্সার রোগীকেও ৫০ হাজার টাকার চেক প্রদান করেছেন ।

আজ সোমবার বিকাল সাড়ে ৩ টার দিকে জেলা প্রশাসক মাহমুদুল আলম তার নিজ কার্যালয়ে দুই জনের ৫০ হাজার টাকা করে দুটি চেক দুই জনের হাতে প্রদান করেন ।

১৯৯৮ সাল থেকে ২০০৪ সাল পর্যন্ত ছাত্র লীগের এই সাবেক সভাপতি হঠাৎ করে ২০১৬ সালে স্ট্রোক প্যারালাইজড হয়ে এক হাত ও পা অচল হড়ে পড়ে । এর পর থেকে সংসারে নেমে আসে সীমাহীন অভাব আর অনটন । তার একমাত্র ৯ বছর বয়সি পুত্র সন্তান আর স্ত্রী নিয়ে দিনাজপুর ৬ নং উপশহরের বসবাস করছেন । তার স্ত্রী দিনাজপুর সাব রেজিষ্ট্রারী অফিসে দিন হাজিরা ভিত্তিক দলিল লেখক হিসাবে কাজ করে কোন রকম সংসার চালাচ্ছেন ।

সাবেক ছাত্রলীগ সভাপতি দবিরুল ইসলামের এই জরার্জন অবস্থার কথা শুনে সাবেক যুব লীগ নেতা খলিলুল্লাহ আজাদ মিল্টন ব্যাক্তিগত প্রচেষ্ঠায় জেলা প্রশাসক স্যারের আন্তরিকতায় ৫০ হাজার টাকা চেক প্রদান করা হয়েছে । জেলা প্রশাসক স্যারের এই অর্থ দিয়ে সে কিছু দিন হয়ত চিকিৎসার সেবা নিতে পারবে ।

একই দিনে জেলা প্রশাসক কাজী কামরুন নেছা নামক এক ক্যান্সার রোগীকে চিকিৎসা সেবার জন্য ৫০ হাজার টাকার চেক প্রদান করা হয়েছে ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য