দিনাজপুর সংবাদাতাঃ কয়েকদিনের টানা বর্ষণ ও উজানের ঢলের কারণে দিনাজপুরে বন্যার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। জেলার প্রধান ৩টি নদী বিপদ সীমা ছুই ছুই করছে। বৃষ্টি অব্যাহত ও নদীর পানি বৃদ্ধি হলে দিনের মধ্যেই জেলার প্রধান নদীগুলোর পানি বিপদ সীমা অতিক্রম করবে বলে আশঙ্কা করছেন পানি উন্নয়ন বোর্ডের কর্মকর্তারা।

দিনাজপুর শহরের নদী তীরবর্তী বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, পুনর্ভবা নদীর পানি বিপদসীমা ছুঁই ছুঁই করছে। পুনভবা নদীর পাশেই অবস্থিত মাঝাডাঙ্গা, নতুনপাড়া গ্রামসহ আশে পাশের গ্রাম গুলোর নিচু এলাকা প্লাবিত হয়েছে। ডুবে গেছে ফসলের ক্ষেত। এছাড়াও দিনাজপুরের নি¤œাঞ্চল প্লাবিত হয়েছে। আগাম তৈরি করা আমন ধানেরবীজতলা তলিয়ে গেছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্রে জানা গেছে, দিনাজপুর শহরের পাশ দিয়ে প্রবাহিত পুনর্ভবা নদীর ৩৩ দশমিক ৫০০ মিটার বিপদসীমার বিপরীতে বর্তমানে পানির স্তর রয়েছে ৩১ দশমিক ২১০ মিটার, আত্রাই নদীর ৩৯ দশমিক ৬৫০ মিটারের বিপদসীমার বিপরীতে বর্তমানে ৩৯ দশমিক ২২০মিটার ও ইছামতি নদীর ২৯ দশমিক ৯৫০ বিপদসীমার বিপরীতে ২৮ দশমিক ৫১০ মিটারে অবস্থান করছে। এছাড়াও জেলার অন্যান্য সকল ছোট নদীর পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

দিনাজপুর পানি উন্নয়ন বোর্ডের পানি সার্ভেয়ার মোঃ মাহাবুব আলম জানান, সোমবার (১৩ জুলাই) সকাল ৯টায় জেলার প্রধান তিনটি নদীর পানি বিপদসীমার কাছাকাছি অবস্থান করছে। পানি বাড়া অব্যাহত থাকলে দিনের মধ্যে নদীগুলোর পানি বিপদসীমা অতিক্রম করবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য