দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরে কোভিড-১৯ করোনাভাইরাস সংক্রামন সম্পর্কে জনগনকে সচেতনতা করতে প্রচার প্রচারনা বিষয়ে দিনাজপুর জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ত্রুটি না থাকলেও, মহামারি নিয়ে দিনে দিনে আগ্রহ কমছে মানুষের মধ্যে। শহরে যেখানে সেখানে জটলা আর যানজোট দেখলে বোঝার উপায় নেই দেশে মহামারির প্রাদুরভাব চলছে।

আজ মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় দিনাজপুর আদালত কাচারি ঘুরে দেখা যায়, উপস্থিত শত শত মানুষের কারো মুখে মাস্ক নেই। শিশু বাচ্চা নিয়ে অনেকে কাচারিতে বিভিন্ন কাজে এসেছে এবং গাদাগাদি জটলা তৈরি করছে। অধিকাংশের মুখেই নেই মাস্ক।

কাচারির এলাকার হোটেল চায়ের দোকান গুলোতে সামাজিক দুরত্বের কোন বালাই নেই। বিশ্বব্যপি যেই মহামারির কারনে বিশ্ববাসি নাজেহাল হয়ে গেছে দিনাজপুরের মানুষ যেন তা পাত্তাই দিচ্ছে না।

একই অবস্থা দিনাজপুর সদরের হাসপাতাল মোড়, জেলরোড, মুন্সিপাড়া, মালদাহপট্টি, চারুবাবুর মোড়, দিনাজপুর বাস টার্মিনাল, বালুয়াডাঙ্গা টেম্পুস্টেন্ড ঘুরে দেখা যায়। শহরের চায়ের দোকান আর হোটেল গুলো জমজমাট।

এদিকে শহরের আসা যাওয়ার প্রায় প্রতিটি টেম্পু ইজিবাইকে গাদাগাদি করে যাত্রী বোঝাই করে শহরে ঢুকছে আবার একই ভাবে বেরিয়ে যাচ্ছে। সামাজিক দুরত্বের সরকারি নির্দেশ নির্দিধায় অমান্য করছে।

আজ মঙ্গলবার, সরকারি হিসেবে শুধু জেলা সদরে করোনা আক্রান্ত শনাক্তের সংখ্যা ২৮১ জন। করোনাভাইরাসের সচেতনতায় আগ্রহ হারাচ্ছে দিনাজপুরের মানুষ, মোড়ে মোড়ে জটলা আড্ডা গুলো যেন আবার জমে উঠছে পূর্বের মত।

জনগন সচেতন না হলে সরকারের পক্ষে একা একা এই মহামারি নিয়ত্রন করা সম্ভব হবে না। মহামারি নিয়ত্রনে জেলা প্রশাসনকে আরো কঠোর হওয়ার আহ্বান করেন দিনাজপুরের সচেতন মহল।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য