আজিজুল ইসলাম বারী, লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ লালমনিরহাটে “সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি” গঠন করা হয়েছে। রবিবার রাতে অন লাইন সভার মাধ্যমে এ কমিটি গঠন করা হয়।

লালমনিরহাট প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও সময় টেলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি মোফাখখারুল ইসলাম মজনুকে সভাপতি, বাংলা ভিশন ও ডেইলি স্টার’র জেলা প্রতিনিধি এস দিলীপ রায়কে সাধারণ সম্পাদক, এনটিভি ও দৈনিক কালের কন্ঠ’র জেলা প্রতিনিধি হায়দার আলী বাবুকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ২১ সদস্য বিশিষ্ট এ কমিটি গঠন করা হয়েছে ।

কমিটিতে দৈনিক মানব জমিন প্রতিনিধি শেখ আব্দুল আলিমকে সহ-সভাপতি ও ডেইলী বাংলাদেশ প্রতিনিধি জিন্নাতুল ইসলাম জিন্নাকে যুগ্ন সম্পাদকও করা হয়েছে।

কমিটিতে সংবাদকর্মী ছাড়াও রাজনীতিবিদ, আইনজীবী, শিক্ষক, কবি, সাহিত্যিক ও সাংস্কৃতিক কর্মী রয়েছেন । আগামি এক সপ্তাহের মধ্যে পূর্নাঙ্গ কমিটি গঠিত হবে। গঠিত এই কমিটি সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ, সাংবাদিকদের অধিকার আদায় ও বিপদগ্রস্ত সাংবাদিকদের পাশে থাকবে।

নবগঠিত কমিটির সাধারণ সম্পাদক এস দিলীপ রায় বলেন, সারাদেশে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে প্রতিনিয়ত সাংবাদিকরা হামলা, মামলা ও নির্যাতনের শিকার হচ্ছেন । আমাদের সকলের উচিত এখনই স্বোচ্চার হয়ে নির্যাতিত ওই সাংবাদিকদের পাশে দাঁড়ানো । বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) নির্যাতিত সাংবাদিকদের পাশে থাকার জন্য জেলা-উপজেলা পর্যায়ে সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি গঠন করার জন্য আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই।

সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটির কেন্দ্রীয় সমন্বয়কারী আহমেদ আবু জাফর বলেন, এই কমিটি গঠনের মধ্য দিয়ে আজ থেকে লালমনিরহাট সাংবাদিক নির্যাতন মুক্ত হবেন। সারাদেশের সাংবাদিকরা লালমনিরহাটের পাশে থাকবে। এই কমিটি সারাদেশের সাংবাদিক নির্যাতনের বিরুদ্ধে বিএমএসএফ’র পাশে থেকে কাজ করবে।

সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটিগুলো গণমাধ্যমকর্মীদের ওপর নির্যাতন, ছাটাই, মামলা-হামলার কারন অনুসন্ধান/ উদঘাটনেও ভুমিকা পালন করবে। এই কমিটি গঠনের মধ্যদিয়ে দেশে সাংবাদিক নির্যাতনের মাত্রা কমে আসবে বলেও বিএমএসএফ’র পক্ষ থেকে আশা করা হচ্ছে। সংগঠনের পক্ষ থেকে দেশের সকল জেলা উপজেলায় দ্রুত সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি গঠনের আহবান জানানো হয়। নির্যাতিত ও সাংবাদিক বান্ধব ব্যক্তিদের নিয়ে কমিটি গঠনের জন্য গুরুত্বারোপ করা হয়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য