রংপুর মেডিকেল কলেজের পিসিআর ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৮৮টি নমুনা পরীক্ষা করে ৪১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তদের মধ্যে চিকিৎসক, পুলিশ, ব্যাংকার ও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রোগীসহ বিভিন্ন বয়সী নারী- পুরুষ রয়েছেন।

নতুন আক্রান্তদের মধ্যে রংপুর মেডিকেল কলেজে চিকিৎসাধীন নাটোরের এক বৃদ্ধ (৭৩), মেট্রোপলিটন পুলিশের এক পুলিশ সদস্য (২৬) মেট্রোপলিটন কোতোয়ালি থানার এক পুলিশ সদস্য (৩৪), মাহিগঞ্জ থানার এক পুলিশ সদস্য (৩৫), তাজহাট থানার এক পুলিশ সদস্য (৩৫), ধাপের এক যুবতী (২৩), গুপ্তপাড়ার এক পুরুষ (৩৮), অপর পুরুষ (৩৫), ঠিকাদারপাড়ার এক যুবক (২৫), শালবন মিস্ত্রিপাড়ার এক পুরুষ (৪৬), কলেজপাড়ার এক পুরুষ (৩১), অপর পুরুষ (৩৪), এক নারী (৩৮), মর্ডাণ মোড়ের এক চিকিৎসক (৩৬), বাবুখাঁর এক বৃদ্ধা (৭০), খলিফা পাড়ার এক চিকিৎসক (৩৪), কেরানীপাড়ার এক পুরুষ (৫৫), মেডিকেল পূর্বগেটের এক পুরুষ (৪০), গঙ্গাচড়ার এক চিকিৎসক (৩৯), অপর চিকিৎসক (৩৫), এক পুরুষ (৩৬), বদরগঞ্জের এক নারী (৫৩), এক যুবতী (২৭), পীরগাছার এক পুরুষ (৩০), অপর পুরুষ (৫৬), কাউনিয়ার এক পুরুষ (৫৮) রয়েছেন।

এছাড়া গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের এক কিশোর (১৭), এক যুবক (২৫), সাদুল্ল্যাপুরের এক বৃদ্ধ (৬০),এক বৃদ্ধা (৭০),এক পুরুষ (৩২), পলাশবাড়ি গাইবান্ধার এক পুরুষ (৪৮), লালমনিহাট হাতিবান্ধার এক বৃদ্ধ (৯৩), লালমনিরহাট সদরের এক পুরুষ (৩৫), এক নারী (৩০), পাটগ্রাম এনসিসি ব্যাংকে কর্মরত এক পুরুষ (৩২), কুড়িগ্রাম সদরের এক পুরুষ (৫৩) রৌমারীর এক নারী (৪০), রৌমারী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন এক যুবতী (২৮), চিকিৎসাধীন অপর নারী (৩০), উলিপুরের এক পুরুষের (৩৫) করোনা শনাক্ত হয়েছে।

বুধবার (১ জুন) সন্ধ্যায় এসব তথ্য নিশ্চিত করেন রংপুর মেডিকেল কলেজের (রমেক) অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. একেএম নুরুন্নবী লাইজু।

তিনি জানান, রমেকের অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের পিসিআর ল্যাবে ১৮৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে রংপুরে ২৫ জন, কুড়িগ্রামে ৫, গাইবান্ধায় ৬, লালমনিরহাটে ৪ জন এবং নাটোর জেলার ১ জনের নমুনায় করোনা শনাক্ত হয়।
এদিকে রমেকের পিসিআর ল্যাব ও রংপুর থেকে ঢাকায় পাঠানো নমুনা পরীক্ষার সবশেষ তথ্য অনুযায়ী রংপুর জেলায় করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৯৬১ জনে। এদের মধ্যে হাসপাতাল ও বাড়িতে চিকিৎসাধীন থেকে সুস্থ হয়েছেন ৫৭১ জন।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য