মোঃ মোখলেছুর রহমান, ভূরুঙ্গামারী কুড়িগ্রাম থেকেঃ কুড়িগ্রামেরভূরুঙ্গামারীতে গৃহ বধূকে জোর পূর্বক ধর্ষণের পর সাদা কাগজে স্বাক্ষর গ্রহন, ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদর্শনের ঘটনা সংক্রান্ত মামলায় আসাদুল হক (৩২) নামের এক যুবককে গ্রেফতার করেছে ভূরুঙ্গামারী থানা পুলিশ।

আটক কৃত ওই যুবক উপজেলার দক্ষিণ ভরতের ছড়া (ঘুন্টিঘর) গ্রামের গাজিউর রহমানের পুত্র। গত মঙ্গলবার রাতে এসআই জয়নাল আবেদিন এর নেতৃত্বে একদল পুলিশ গোপন সংবাদের ভীত্তিতে অভিযান চালিয়ে উপজেলার সোনাহাট ব্রিজ পাড়ের পূর্ব থেকে আসামিকে গ্রেপ্তার করে।

 

পুলিশ ও মামলার এজাহার সূত্রে জানাগেছে, গত ১৫/০৬/২০২০ তারিখ রাত্রি অনুমান ০৮.৩০ ঘটিকার সময় ঐ গৃহ বধূর খাওয়া দাওয়া শেষে ঘুমিয়ে পরে। স্বামী বাড়িতে না থাকার সুযোগে আসামী আসাদুল হক (৩২) রাত অনুমানিক ১১.৩০ ঘটিকার সময় কৌশলে দরজা খুলে ঘরে প্রবেশ করে ওড়না দিয়ে গৃহবধূর মুখ বেধে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে।

ঐ সময় গৃহ বধূর স্বামী বাড়িতে এসে ডাক দিলে ধর্ষক দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরের দিন ১৬/০৬/২০২০ তারিখে ধর্ষকের পরিবারের লোকজন শালিসের মাধ্যমে বিষয়টি মিমাংসার কথা বলে।

গত ২০/৬/২০ তারিখে শালিস বসিয়ে ধর্ষিত গৃহবধূ সহ তাহার স্বামীকে বিভিন্ন প্রকার ভয়ভীতি দেখিয়ে সাদা কাগজে স্বাক্ষর গ্রহন করে। পরে এই ঘটনায় ধর্ষিত ঐ গৃহবধু বাদী হয়ে থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করে। মামলা নং ১৩ /৩০.০৬.২০২০।

ভূরুঙ্গামারী থানার ওসি মুহাঃ আতিয়ার রহমান আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

 

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য