ভারত-চীনের দ্বন্দ্বের মাঝেই ভারতের সীমান্তে বেশ সক্রিয় ভূমিকা নিতে শুরু করেছে নেপালের সেনারা। এমনকি ভারতের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের আওয়াজ তুলেছে সে দেশের সরকার। এবার ভারত সরকারের বিরুদ্ধে আরেক অভিযোগ তুললেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কেপি ওলি।

তিনি অভিযোগ করেছেন, ভারতে তার সরকারের বিরুদ্ধে চক্রান্ত রচনা হচ্ছে। তার সরকারের পতন ঘটাতে একের পর এক বৈঠক করছে দিল্লি। তার অভিযোগ, কাঠমান্ডুর বিভিন্ন হোটেলেও বৈঠক হচ্ছে যেগুলো নেপালে ভারতীয় দূতাবাসের পক্ষ থেকে আয়োজন করা হচ্ছে।

গতকাল প্রয়াত কমিউনিস্ট নেতা মদন ভান্ডারির ৬৯তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে নিজের সরকারি বাসভবনে এক ভাষণে তিনি একথা বলেছেন। তিনি দাবি করেছেন, তার সরকারের পার্লামেন্টে সংখ্যাগরিষ্ঠতা রয়েছে এবং উৎখাতের পরিকল্পনা ভেস্তে যাবে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু এখবর জানিয়েছে।

গত কয়েকদিন ধরেই নেপাল সরকারের পরিবর্তিত মানচিত্র নিয়ে বিতর্ক উঠেছিল। উত্তরাখন্ডের লিম্পিয়াধুরা-কালাপানি-লিপুলেখ অঞ্চলটি পরিবর্তিত মানচিত্রে নেপালের অংশ হয়ে গেছে, যেটি নিয়ে ক্ষোভ এবং নিন্দা জানিয়েছে দিল্লি। এটি নেপালের লোকসভায় পাশ হয়ে গেছে এবং এই মর্মে ওঠা বিল সই করেছেন নেপালের প্রেসিডেন্ট দেবী ভান্ডারি। -দ্য হিন্দু

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য