দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরে এপেক্স বাংলাদেশের পক্ষ থেকে করোনা শনাক্ত রোগীদের জন্য ন্যাবুলাইজার মেশিন, ঔষধ , ময়লা ফেলানোর জন্য বালতি ও সাংবাদিকদের জন্য মাস্ক ও হ্যান্ড গ্লাভস বিতরণ করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) দিনাজপুর জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে করোনা রোগীদের চিকিৎসার জন্য ঔষধ , চিকিৎসা সরঞ্জাম,ময়লা ফেলানোর জন্য বালতি দিনাজপুর সিভিল সার্জন ডা. মোঃ আব্দুল কুদ্দুছের মাঝে এবং সাংবাদিকদের জন্য মাস্ক ও হ্যান্ড গ্লাভস তুলে দেন দিনাজপুর জেলা প্রশাসক মোঃ মাহমুদুল আলম।

জেলা প্রশাসক মোঃ মাহমুদুল আলম বলেন, দিনাজপুরে প্রতিনিয়ত করোনা শনাক্তের হার বৃদ্ধি পাচ্ছে। করোনাকালে এই সমস্থ জিনিস অনেক উপকারে আসবে। এই সমস্থ জিনিস প্রদান করার জন্য তিনি এপেক্স বাংলাদেশকে ধন্যবাদ জানান।

দিনাজপুর সিভিল সার্জন ডা. মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ ঔষধ, চিকিৎসা সরঞ্জাম দেখে বলেন, এগুলো দিয়ে করোনা রোগীর চিকিৎসা করা যাবে। তিনি এগুলো বিভিন্ন উপজেলা হাসপাতালের করোনা আইসোলেশন ইউনিটে পাঠিয়ে দেবেন।

ডিজি -৭ এপেক্স বাংলাদেশ এপেক্সিয়ান মোঃ জহুরুল ইসলাম বলেন, এপেক্স বাংলাদেশ একটি আন্তর্জাতিক সেবা সংগঠন। এই সংগঠনের পক্ষ থেকে করোনাকালে সারাদেশেই বিভিন্ন ক্লাবের মাধ্যমে ৬৪ টি জেলাতেই সাংবাদিকদের ২০০ মাস্ক ও গ্লাভস এবং করোনা রোগীদের চিকিৎসার জন্য ঔষধ ও চিকিৎসা সরঞ্জাম দেওয়া হচ্ছে। তারই অংশ হিসেবে দিনাজপুরে পাঠানো হয়েছে।

এই দুঃসময়ে সাংবাদিকেরা অনেক ঝুঁকি নিয়ে মাঠে কাজ করছেন। আর করোনা রোগীদের চিকিৎসায় তাদের ক্লাবের এই সহায়তা যদি একজন রোগীরও প্রাণ বাঁচানোর কাজে লাগে, তাহলে ভালো লাগবে।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আবু সালেহ মো. মাহফুজুল আলম, এপেক্সিয়ান মোঃ জহুরুল ইসলাম ডিজি -৭ এপেক্স বাংলাদেশ, এপেক্সিয়ান মোঃ মাহমুদুল হক সাবু, আইপি এন ইডি, এপেক্সিয়ান ডাঃ সাইদুল ইসলাম বাবু প্রেসিডেন্ট এপেক্স ক্লাব অব দিনাজপুর, এপেক্সিয়ান রাজিউদ্দীন চৌঃ ডাবলু লাইফ মেম্বার এপেক্স ক্লাব অব দিনাজপুর, এপেক্সিয়ান মামুনুর রশীদ জুঃ ভাঃ প্রেসিডেন্ট এপেক্স ক্লাব অব পুনর্ভবা প্রমুখ।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য