দিনাজপুর সংবাদাতাঃ নভেল করোনা পরিস্থিতির উন্নতি না হলেও দিনাজপুরের বীরগঞ্জে আগের মতো মাস্ক ব্যবহার করছে না মানুষ।

উপজেলার ১১টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার হাট-বাজারেও নেই সামাজিক দূরত্বের বালাই। জানা যায়,সম্প্রতি বীরগঞ্জ থানার এক পুলিশ সদস্য করোনা পজিটিভ হয়ে মৃত্যু এবং দিন দিন নতুন করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার খবর আসলেও মানুষের মধ্যে কোনো সচেতনতা নেই। এখনো এক মোটরসাইকেলে তিনজন মাস্ক, হেলমেন্ড বিহীন চলাচল করছেন অনেকেই।

এর মধ্যে দোকানপাটসহ সব কিছু সর্তসাপেক্ষ খুলে দেওয়া হলে। মানুষও সব কিছু ভুলে নিজেদের মতো করে চলতে শুরু করেছে। আগের মতো তারা মাস্ক ব্যবহার করছে না। সামাজিক দূরত্বও বজায় রাখছে না।

উপজেলা প্রশাসন, সেনাবাহিনীর সদস্য এবং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসকরা বারবার সামাজিক নিরাপত্তা বজায় রাখা,মাস্ক ব্যবহার করা,প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে না যাওয়া এবং বারবার সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার ওপর গুরুত্ব দিলেও সরজমিনে দেখা গেছে এর উল্টা চিত্র।

বীরগঞ্জ উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে গিয়ে দেখা যায়, বেশির ভাগ লোক মাস্ক ছাড়া সামাজিক নিরাপত্তা উপেক্ষা করে কেনাকাটা করছে।

উল্লাস সিনেমাহলের সামনে ১০ টাকা কেজির চাল বিতরণ স্থলেও একই চিত্র দেখা গেছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো: ইয়ামিন হোসেন মুঠোফোনে বলেন, মাস্ক ব্যবহার না করলে আইনানুযায়ী তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য