দিনাজপুর সংবাদাতাঃ দিনাজপুরের বিরলে মাদ্রাজী, বোম্বাই জাতের পর এবার নজর কাড়ছে চায়না থ্রি, চায়না টু ও বেদেনা হাড়িয়া জাতের লিচু। লিুচ মৌসুমের প্রায় শেষ দিকে গাছে গাছে লাল আভরনে শোভা পাওয়া এই জাতের লিচু গুলির দামও একটু বেশি।

বাগানেই এসব লিচু বিক্রি হচ্ছে বাছাই করা প্রতি হাজার চায়না থ্রি সাড়ে চার থেকে পাঁচ হাজার টাকা এবং বেদেনা (হাড়িয়া) সাড়ে তিন থেকে চার হাজার টাকা দরে। চলমান মহামারি করোনা (কোভিড-১৯) এবং প্রকৃতিক দূর্যোগের কারণে প্রথমে লিচু নিয়ে বাগান মালিক ও ব্যবসায়ীরা দারুণ শংকায় থাকলেও সে শংকা এখন আর নেই। সরকারের সদিচ্ছা এবং উপজেলা প্রশাসনের নজর দারীর মধ্যে দিয়ে রেল ও সড়ক পরিবহনের মাধ্যমে এসব লিচু যাচ্ছে রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায়। লিচুর দাম পেয়ে একদিকে যেমন বাগান মালিক ও ব্যবসায়ীরা খুশি। অন্যদিকে লিচু নিতে বিভিন্ন জেলার মানুষ এ উপজেলাতে আসায় কোরানা পজেটিভ এবং আক্রান্তের সংখ্যা জেলার ১৩ উপজেলার মধ্যে এ উপজেলার অবস্থান দ্বিতীয় হয়েছে বলে এমনটাই মনে করছেন অনেকে।

প্রতিনিয়ত গাছ থেকে লিচু নামানো হলেও আবহাওয়া ও পরিস্থিতি অনুকুলে থাকলে আগামী ৮ থেকে ১০ দিনের মধ্যে সম্পূর্নভাবে এসব লিচু বাজারে উঠবে বলে জানিয়েছেন, বাগান মালিক ও লিচু ব্যবসায়ীরা।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য