রংপুর জজ কোর্টের সিনিয়র আইনজীবী ও সাবেক এপিপি আসাদুল হককে নির্মমভাবে হত্যার প্রতিবাদ জানিয়েছে রংপুরআইনজীবী সমিতি। এই হত্যাকাণ্ডে জড়িত অপরাধীদের দ্রুত গ্রেফতার করাসহ সর্বোচ্চ শাস্তি ফাঁসির দাবি জানিয়েছেন আইনজীবী নেতারা।

রোববার দুপুরে রংপুর নগরীর কাচারি বাজার চত্বরে অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ থেকে এ দাবি জানানো হয়।

রংপুর জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি পিপি আবদুল মালেকের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সমিতির সাধারণ সম্পাদক আবদুল হক প্রামাণিক, রংপুর আইন কলেজের অধ্যক্ষ সাজেদ হোসেন তাতা, সমিতির সদস্য রফিকুল ইসলাম মুকুল প্রমুখ। মানববন্ধনে আইনজীবী সমিতির সদস্যরা ছাড়াও শিক্ষানবিশ আইনজীবী ও সহায়করা অংশ নেন।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, দিনে দুপুরে আইনজীবী আসাদুল হককে তার বাড়িতে ঢুকে ছুরিকাঘাত ও গলাকেটে হত্যার ঘটনা প্রমাণ করে দেশের আইনজীবীরা সুরক্ষিত নয়। আইনজীবীদের সুরক্ষার প্রয়োজন আছে। একই সাথে এই হত্যাকাণ্ডে জড়িত রতন মিয়াসহ পলাতক অন্য আসামিদেরকে দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। এ সময় দেশের আইনজীবীদের স্বার্থে ‘আইনজীবী সুরক্ষা আইন’ প্রণয়নে সরকার প্রধানসহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান আইনজীবী নেতারা।

উল্লেখ্য, গত শুক্রবার দুপুরে নগরীর মর্ডাণ বারো আউলিয়া গ্রামের নিজ বাড়িতে চোরের হাতে খুন হন আইনজীবী আসাদুল হক। ওই ঘটনায় গ্রেফতার হওয়া যুবক রতন মিয়া স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে হত্যার দায় স্বীকার করেছেন। চুরি করা দেখে ফেলায় এবং নাম ধরে ডাক দেওয়ায় আইনজীবী আসাদুল হককে গলাকেটে হত্যা করে রতন ও তার সহযোগী।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য