আরিফ উদ্দিন, গাইবান্ধাঃ করোনা উপসর্গ নিয়ে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা চত্বরের চায়ের দোকানদার আব্দুর রহমান (৫২) শুক্রবার রাত সাড়ে ১১টায় নিজ বাড়িতে মারা যায়। সে খলশী গ্রামের মৃত গমির উদ্দিন আরজীর ছেলে।

রাতে বিষয়টি গোবিন্দগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ জানতে পেরে আব্দুর রহমানের দাফন কার্যকর্মের বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, গোবিন্দগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমওকে বিষয়টি অবহিত করেন। পরে শনিবার গোবিন্দগঞ্জ থানা পুলিশ, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আরএমও, উপজেলা ভূমি মসজিদের ইমাম মওলানা আরিফ বিল্লাহ, মোয়াজ্জেম মোঃ মোফাজ্জল হোসেন ও গ্রামবাসীর সহায়তায় রহমানের দাফন কাজ শেষ করা হয়। করোনা ভয়ে জানাযার সময় পরিবারের কেউ উপসি’ত ছিল না। উল্লেখ্য, উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পক্ষ থেকে পরিবারের সংশ্লিষ্ট সকলকে হোম কোয়ারান্টাইনে থাকার নির্দেশনা দেয়া হয়।

জানা গেছে, আব্দুর রহমান দীর্ঘদিন থেকে ডায়াবেটিস ও কিডনি জনিত সমস্যায় ভুগছিল। ঈদের পর থেকে তার অসুস’তা বেড়ে গেলে শুক্রবার দুপুরে গোবিন্দগঞ্জের একটি ক্লিনিকের চিকিৎসক তাকে পরীক্ষা করে তার জ্বর ও গলা ব্যাথা দেখে বলে টাইফয়েডের সমস্যা। এরপর রহমান বাড়ি এসে চিকিৎসাধীন থাকা অবস্থায় রাতে মারা যায়।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য