রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার বালাপাড়া উউনিয়ংনের হলদীবাড়ি এলাকা থেকে পাথর বোঝাই ট্রাকের মধ্য থেকে ৪৫ কেজি গাঁজা ও ১শ ৭৬ বোতল ফেনসিডিলি সহ দুই মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। আটক করা হয়েছে ট্রাকটিও। সোমবার ভোরে এসব মাদক আটক করা হয়। রংপুর র‌্যাব ১৩ সহকারী পুলিশ সুপার আহসান হাবিব বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

র‌্যাব জানায় গোপন সংবাদের উপর ভিত্তি করে সোমবার ভোরে কাউনিয়া উপজেলার হলদিবাড়ি এলাকায় অবস্থিত সুফিয়া ফিলিং ষ্টেশনের সামনে দাঁড়িয়ে থাকা পাথর বোঝাই ট্রাকটি তল্লাশী চালিয়ে পাথরের ভেতরে লুকিয়ে রাখা কয়েকটি বস্তায় ৪৫ কেজি গাঁজা ও ১৭৬ বোতাল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় ট্রাকের ড্রাইভার শামিম ইসলাম পিতা মোঃ শহিদার রহমান, বাড়ি-গুড়াতিপাড়া, উপজেলা পাটগ্রাম, জেলা লালমনিরহাট ও হেলপার মোঃ মশিয়ার রহমান পিতা- মোঃ আমিনুর রহমান, বাসা বাইশপুকুর, উপজেলা ডিমলা, জেলা নীলফামারীকে গ্রেফতার করা হয়।

র‌্যাব জানায় গ্রেফতারকৃত অভিযুক্তরা লালমনিরহাট জেলায় পেশাদার মাদক ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটের অন্যতম সক্রিয় সদস্য।

প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা স্বীকার করেছে যে, ট্রাকটি লালমনিরহাটের বুড়িমারী স্থলবন্দর সীমান্ত হতে পাথর বোঝাই করে ঢাকার উদ্দেশ্যে রওনা করে এবং পথিমধ্যে লালমনিরহাট জেলার হাতিবান্ধা থানাধীন ফেডাসন বাজারের সন্নিকটে বিশেষ কায়দায় ট্রাকে বোঝাইকৃত পাথরের মধ্যে গাঁজা ও ফেন্সিডিল বোঝাই করে। তারা দেশের উত্তরাঞ্চলের সীমান্ত এলাকা থেকে সুকৌশলে বিভিন্ন পণ্য বোঝাইকৃত ট্রাকের মধ্যে করে মাদকের বড় চালান এনে অন্যান্য জেলা উপজেলায় পাইকারী সাপ্লাই দিতো।

এ ব্যাপারে র‌্যাব ১৩ সহকারী পুলিশ সুপার আহসান হাবিব জানান গ্রেফতারকৃত মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য