দিনাজপুর সংবাদাতাঃ হিলিতে বকেয়া বেতনের দাবিতে আরনু জুটমিলের সামনে বিক্ষোভ করেছে মিলের শত শত শ্রমিকরা। আজ (২৬ শে এপ্রিল) রবিবার সকাল ১১ টায় সময় মিলের সামনে বিক্ষোভ করতে থাকে তারা। এসময় এক পর্যায়ে পুলিশ এসে তাদের সরিয়ে দেয়। পরে বকেয়া বেতন পরিশোধ এবং দুই একদিনের মধ্যে মিলে কাজ শুরু হবে এমন আশ্বাসের ফলে শ্রমিকরা বিক্ষোভ তুলে নেন।

জুটমিলের শ্রমিকরা জানান, করোনা ভাইরাসের কারনে গত র্মাচ মাসে তাদেরকে ১০ কেজি চাল, ৩ কেজি আলু এবং ১ কেজি সয়াবিন তেল দিয়ে মেল বন্ধ করে দেয় এবং প্রতি সপ্তাহে তাদের খাবার দেওয়া হবে এই বলে তাদের ভোটার আইডি কার্ড নিয়ে নেয় মিল কর্তৃপক্ষ। কিন্তু তাদেরকে আর কোন প্রকার সহয়তা করা হয়নি।এতে করে শ্রমিকদের সংসারে অভাব দেখা দেয় এবং খাবারের সংকট দেখা

তারা আরো জানান, আজ (২৬ শে এপ্রিল) রবিবার বেতন দিবে এমন আস্বাস দেন মিল কর্তৃপক্ষ। এরই পেক্ষিতে শ্রমিকরা জুটমিলে আসেন। তবে মিলের ম্যানেজার তাদেরকে বেতন দিবেনা এমন কথার পেক্ষিকে শ্রমিকরা বিক্ষোভ করেন। সকাল ১১ টা থেকে প্রায় দুপুর পযন্ত তারা বিক্ষোভ করেন।

হাকিমপুর থানার উপপরিদশক এসআই আব্দুল হালিম জানান, আমরা সংবাদ পাই যে আরনু জুটমিলের সামনে বকেয়া বেতনের জন্য শ্রমিকরা বিক্ষোভ করছে। এই সংবাদ পেয়ে আমরা সেখানে গিয়ে মালিক পক্ষের সাথে কথা বলে পরিস্থিতি নিয়ন্তনে এনেছি।

আরনু জুটমিলের ম্যানেজার মিজানুর রহমান মিজান জানান, আমাদের আরনু জুটমিলে প্রায় ৮শ শ্রমিক কাজ করে। সরকারের নিয়ম অনুসারে সারাদেশেরন্যায় আরনু জুটমিলও বন্ধ রয়েছে। মিল বন্ধ থাকার কারনে তাদের একটা বিল বকেয়া আছে।যেহেতু আমাদের এই জুটমিলটি রপ্তানী মুখী প্রতিষ্ঠান। বিভিন্ন মালামাল ভারতে পাঠাতে পারিনি। কারন ভারতেও লকডাইন চলছে।আমরা ইতিমধ্যে মালিকের সাথে কথা বলেছি। এই সপ্তাহের মধ্যেই মিল চালু হবে এবং তাদের বকেয়া বিল পরিশোধ করা হবে।

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য