আফগানিস্তান বিষয়ক মার্কিন প্রধান কূটনীতিবিদ জালমাই খলিলজাদ এবং আফগানিস্তানে মোতায়েন মার্কিন বাহিনীর কমান্ডার জেনারেল স্কট মিলার পাকিস্তানে অনির্ধারিত সফর করছেন। করোনা প্রকোপ ঠেকাতে পাকিস্তানে যখন লকডাউন চলছে তখন তারা এ সফর করেন।

আফগানিস্তানের প্রায় দুই দশক ধরে চলমান যুদ্ধের রাজনৈতিক সমাধান প্রচেষ্টার অংশ হিসাবে তারা দেশটি সফর করছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। পাক সেনা সদরদফতরে সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়ার সঙ্গে আলোচনা করেছেন খলিলজাদ এবং জেনারেল স্কট। আফগানিস্তানের সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন তারা।

পাক আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ বিভাগের বিবৃতিতে বলা হয়, পারস্পরিক স্বার্থ সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে আলোচনার পাশাপাশি আফগান শরণার্থী সমস্যা এবং দেশটির সংহতি প্রক্রিয়াসহ আঞ্চলিক নিরাপত্তা পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনা করেন তারা।

চলমান কোভিড-১৯ পরিস্থিতির কারণে আফগান শান্তি প্রক্রিয়া যেন লক্ষ্যচ্যুত না হয় তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন পাক সেনা প্রধান।

এদিকে, মার্কিন দূতাবাসের বিবৃতিতে বলা হয়, জেনারেল কামারের সাথে বৈঠকে আফগানিস্তানে টেকসই শান্তির লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্রের চলমান প্রচেষ্টা নিয়ে আলোচনা করেছেন খলিলজাদ ও জেনারেল মিলার।

ধারণা করা হচ্ছে, পাকিস্তানের সহায়তা চাওয়ার অংশ হিসেবে করোনার মধ্যেও এ সফর করতে বাধ্য হয়েছেন মার্কিন শীর্ষস্থানীয় কর্মকর্তারা। আন্তঃআফগান সংলাপকে এগিয়ে নেওয়ার প্রচেষ্টার অংশ হিসেবে এ সফর করেন তারা। মতবিরোধের কারণে আফগান সরকার এবং তালেবানদের মধ্যে বন্দী বিনিময় বিলম্বিত হওয়ার পরই তারা এ সফর করলেন।

তবে, সাধারণভাবে মনে করা হয় যে প্রায় দুই দশক যুদ্ধের পরও আফগানিস্তানের সার্বিক পরিস্থিতি মোটেও আমেরিকার অনুকূলে যায় নি। আমেরিকা এখন দেশটি থেকে সম্মান নিয়ে সরে পড়ার পথ খুঁজছে। কথিত শান্তি প্রক্রিয়াকে সে লক্ষ্যেই ব্যবহার করছে আমেরিকা ও তার মিত্ররা।

পার্সটুডে

মন্তব্য লিখুন (ফেসবুকে লগ-ইন থাকতে হবে)

মন্তব্য